বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

সম্পূর্ণ খবর

Mamata Banerjee: দণ্ড সংহিতা নিয়ে শাহকে চিঠি মমতার

Riya Patra | ২৯ নভেম্বর ২০২৩ ১২ : ৫৩


বীরেন ভট্টাচার্য, নয়া দিল্লি: ভারতীয় দণ্ড সংহিতা নিয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে চিঠি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। আসন্ন শীতকালীন অধিবেশনে ভারতীয় দণ্ড সংহিতা বিলটি পাস করাতে চায় মোদি সরকার। যদিও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে দেওয়া চিঠিতে মুখ্যমন্ত্রী শীতকালীন অধিবেশনে বিলটি পাস না করনোর প্রস্তাব দিয়েছেন। বিলটি পাস করাতে অত্যন্ত তড়িঘড়ি করার অভিযোগ তুলে তিনি প্রস্তাব দিয়েছেন, পরবর্তী লোকসভা এবং নতুন সরকার গঠনের পর বিলটি নিয়ে অগ্রগতি হবে। পুরনো আইন বদল করে নতুন ভারতীয় দণ্ডবিধি পরিবর্তন করার আগে সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের বিস্তারিত মতামত নিয়ে তবেই এগোনো উচিত বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

গত ২২ আগস্ট দণ্ড সংহিতা নিয়ে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের থেকে মতামত চেয়ে চিঠি দিয়েছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এদিন সেই চিঠির জবাব দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে লেখা চিঠিতে তিনি উল্লেখ করেছেন, "বর্তমানে যে ফৌজদারী আইন রয়েছে, তার পুরোপুরি বদল করা এবং তার পরিবর্তে নতুন আইন তৈরি করা আমাদের নীতিতে দীর্ঘমেয়াদি প্রভাব পড়বে। বিভিন্ন দিক থেকে সাধারণ মানুষের ওপর প্রভাব ফেলবে এই প্রস্তাবিত পরিবর্তন। সেই কারণেই, আমার মতে, অতিরিক্ত সতর্কতা এবং প্রয়োজনীয় অধ্যাবসায় মেনে চলতে হবে। " মুখ্যমন্ত্রীর মতে, সংসদ এই বিষয়টি নিয়ে আইন তৈরির আগে সমস্ত পক্ষের সঙ্গে ব্যাপক ও বিস্তারিত আলোচনা করা প্রয়োজন। বিচারবিভাগ, সমাজকর্মী, মানবধিকার কর্মী, সাধারণ মানুষের বিস্তারিত মতামত গ্রহণ প্রয়োজন। এই দিকটি বাদ দেওয়া হলে দেশের মানুষের ওপর তার নেতিবাচক প্রভাব পড়বে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পাঠানো চিঠিতে মুখ্যমন্ত্রী উল্লেখ করেছেন, "বর্তমান লোকসভা প্রায় শেষ হতে চলেছে। ফলে, আমার মতে, পরবর্তী লোকসভার সদস্য এবং নতুন সরকার এই বিষয়টি নিয়ে আলোচনা এবং পরবর্তী পদক্ষেপ করবে।" মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, বিলটি বিস্তারিত পর্যালোচনা করেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। নির্ধারিত সময়ে রাজ্যসভার সচিবালয়ে রাজ্যের মতামত পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে চিঠিতে উল্লেখ করেছেন তিনি।

গত বাদল অধিবেশনে লোকসভায় বিলটি পেশ করা হয়। তবে সেটি বিস্তারিত আলোচনা এবং পাস না করিয়ে সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে পাঠানো হয়। কংগ্রেস, ডিএমকের মতো ইন্ডিয়া জোটের অন্তর্ভুক্ত অন্যান্য দলের পাশাপাশি তৃণমূলও সামনের সারিতে থেকে এই বিলের বিরোধিতা করেছে। মূলত তৃণমূলের বক্তব্য, বিলটি পাস করাতে অত্যন্ত তড়িঘড়ি করা হচ্ছে। এই বিলটি পাস করিয়ে মোদি সরকার রাজনৈতিক ফায়দা তুলতে চাইছে বলে অভিযোগ করা হয়। বিলটি নিয়ে আলোচনার জন্য বিশেষজ্ঞদের নামের তালিকাও সংসদীয় কমিটির চেয়ারম্যান ব্রিজ লালকে দেয় তৃণমূল।



বিশেষ খবর

নানান খবর

Advertise with us

নানান খবর

'রেডিও ফর চাইল্ড ২০২৪'-এ পুরস্কৃত আকাশবাণী

Television: ৭ দিনের ৭ কাহন, ধারাবাহিকের পর্বে পর্বে কী কী চমক লুকিয়ে?...

Nirapada Sardar: জামিন পেলেন নিরাপদ সর্দার, পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলল হাইকোর্ট ...

Nawsad Siddiqiue: ৭ ঘণ্টা পর লালবাজার থেকে ছাড়া পেলেন নওশাদ সিদ্দিকি...

Kolkata GPO: কলকাতা জি পি ওর ২৫০ বছর

দশ বছর পরেও বাড়বে গুরুত্ব, ভবিষ্যত সুনিশ্চিত করছে জেনেটিক্স...

Corona: ‌করোনায় কলকাতায় মৃত যুবক

খালিস্তানি বিতর্কে এবার রাজ্যের মুখ্যসচিবের দ্বারস্থ শিখ সম্প্রদায়...

Kunal Ghosh: সাত দিনের মধ্যে গ্রেপ্তার হবে শাহজাহান, কুণাল ...

Leela Majumdar: লীলা মজুমদার স্মারক বক্তৃতা

Abhishek Banerjee: বাংলার গর্জন কী, তার একটা ট্রেলর ১০মার্চ: অভিষেক...

TMC: ১০ মার্চ ব্রিগেডে তৃণমূলের 'জনগর্জন সভা'...

Fire: আনন্দপুরের বস্তিতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড, ভস্মীভূত একাধিক ঘর, দোকান ...

জেলাশাসক, পুলিশ সুপারদের সঙ্গে বৈঠক মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের ...

পয়লা মার্চ বাংলায় ১০০ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী...

Trum: জন্মদিনে পথে নামল ৪৮ সালের ট্রাম

KMC: কলকাতা পুরসভার বিশেষ উদ্যোগ

সোশ্যাল মিডিয়া