আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ সারা দেশে প্রথম লোকাল ট্রেন চালু হচ্ছে মুম্বই নগরীতে। এর আগে প্রথম মেট্রো চালু হয়েছিল কলকাতায়। যার পরে একে একে দেশের নানা মেট্রোপলিটান শহর এগিয়ে এসে মেট্রোর দরজা খুলে দেয়। এবার মুম্বই পথপ্রদর্শক হল। আশা করা হচ্ছে, মুম্বইয়ের দেখাদেখি বাংলাতেও লোকাল ট্রেন চালু হতে পারে। তাহলে বাসের ভিড় অনেকটা কমবে। যাঁদের ক্ষেত্রে যাতায়াতটা বাধ্যতামূলক, তাঁদের জন্য লোকাল ট্রেন সবথেকে বেশি সুবিধের। ভাড়াও কম। পূর্ব রেলের অতিরিক্ত জেনারেল ম্যানেজার পুজোর আগে রাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিবকে চিঠি দিয়েছিলেন। জানতে চেয়েছিলেন, কবে থেকে চালু হতে পারে ট্রেন। কিন্তু এখনও সে বিষয়ে রেলের কাছে কোনও নির্দেশ আসেনি। রাজ্য সরকার এখনও লোকাল ট্রেন চালু করার বিষয়ে সংশয়ে রয়েছে। কারণ, বাংলায় যেভাবে সংক্রমণের হার বেড়েছে, বিশেষ করে কলকাতায়, সেক্ষেত্রে ট্রেন চালু হলে সংক্রমণ আরও বাড়তে পারে। সেই আশঙ্কায় এখনও লোকাল ট্রেন চালু করার কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। কিন্তু বিষয়টি আলোচনার পর্বে রয়েছে। স্বাস্থ্য আধিকারিকেরা পুরো বিষয়টিকে খতিয়ে দেখছেন।

বিশেষ পরিষেবার যাত্রীদের জন্য এর আগেই লোকাল ট্রেন চালু হয়েছে মহারাষ্ট্রে। কিউআর কোডের বিশেষ পাস রাখতে হয়েছে তাঁদের সঙ্গে। এবার সাধারণ যাত্রীদের জন্যেও সে পথ খোলার ব্যবস্থা হল। সকাল সাড়ে সাতটা থেকে শুরু করে রাত আটটার পরে শেষ ট্রেন। আগের মতো করেই বেশ কিছু ট্রেন চালানো হবে। সঙ্গে একাধিক স্বাস্থ্যবিধি। মহারাষ্ট্র সরকার জানিয়েছে, মাস্ক না পরে লোকাল ট্রেনে চড়লেই ২০০ টাকা জরিমানা করা হবে। আর জরিমানার টাকা দিতে না পারলে তাঁদের দিয়ে রাস্তা ঝাঁট দেওয়ার মতো সমাজসেবামূলক কাজ করানো হবে। নভেম্বরের মাঝামাঝি থেকে মুম্বইয়ে সাধারণ যাত্রীদের জন্য ট্রেন চালানো হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

জনপ্রিয়

Back To Top