আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ বিধানসভায় সিএএ বিরোধী প্রস্তাব পেশ করেছিল তৃণমূল। সেই প্রস্তাব পাশ করে দিল বিধানসভা। রাজ্যের কংগ্রেস ও বাম এই প্রস্তাবে সমর্থন জানাল।

 

 

কেরল সবার আগে। তারপর পাঞ্জাব, রাজস্থান। এবার পশ্চিমবঙ্গ। সোমবার দুপুরে বিধানসভার বিশেষ অধিবেশনে সিএএ–র বিরুদ্ধে প্রস্তাব আনল তৃণমূল কংগ্রেস। প্রস্তাবকে সমর্থন জানালেও কিছু বিষয়ে প্রশ্ন তুলেছেন কংগ্রেস এবং বাম বিধায়করা। পরিষদীয়মন্ত্রী পার্থ চ্যাটার্জি এদিন রাজ্য বিধানসভায় প্রস্তাব পেশ করেন। একমাত্র বিজেপি বিধায়ক এই প্রস্তাবের বিরোধিতা করলেও বাকি সব বিধায়করা সমস্বরে তাঁর বিরোধিতা করেছেন। শাসক দল তো বটেই বাম এবং কংগ্রেস বিধায়করাও প্রস্তাব পাসের পক্ষেই মত দেন।
কয়েকদিন আগেই মুখ্যমন্ত্রী সিএএ বিরোধী প্রস্তাব পাসের ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। এমনকি বিজেপিশাসিত সহ উত্তরপূর্বাঞ্চলের সব রাজ্যগুলিকেই সিএএ বিরোধী প্রস্তাব আনার আবেদন করেছিলেন মমতা। গত ১১ ডিসেম্বর রাজ্যসভায় পাস হয়েছিল ক্যাব। সংসদের দুই কক্ষে পাস হওয়ার পর রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষরের পরই তা আইন হয়েছে। গত ১৬ ডিসেম্বর, এনপিআর–এর প্রক্রিয়ায় স্থগিত করেছিল রাজ্য সরকার। তার ৪২ দিন পর সিএএ–র বিরুদ্ধে প্রস্তাব আনছে রাজ্য। স্বরাষ্ট্র এবং পার্বত্য বিষয়ক দপ্তরের অতিরিক্ত সচিব চিঠি দিয়ে এনপিআর রাজ্যে স্থগিত করার কথা ঘোষণা করেন। দেশের সাধারণ নাগরিকদের রেজিস্টার হিসেবে গণ্য হবে এনপিআর।   ‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top