‌‌‌সংবাদ সংস্থা, দিল্লি: হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন না পেলে প্রত্যাঘাতের হুমকি দিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আরও এক দাবিদার ব্রাজিল ভারতকে আবেদন জানাতে রামায়ণের শরণ নিল। হনুমান যেমন সঞ্জীবনীর সাহায্যে মৃতপ্রায় লক্ষ্মণের প্রাণ বাঁচিয়েছিলেন, তেমনই এই আন্তর্জাতিক সঙ্কটে মানুষের স্বার্থে ভারতকে পাশে চাইল ব্রাজিল!‌ তাৎপর্যপূর্ণ বিষয় হল, আজ হনুমান জয়ন্তী। 
লাতিন আমেরিকার যে সব দেশে মহামারী করোনার থাবা চওড়া হয়েছে, তার অন্যতম ব্রাজিল। ‘‌হটস্পট’‌ চিহ্নিত হয়েছে সাও পাওলো। মৃতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। এই অবস্থায় সংক্রমণ রোধে আবারও হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন চেয়ে, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে চিঠি দিয়েছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট আয়ার বোলসোনারো। চিঠির এক অংশে লিখেছেন, ‘‌ঠিক যেমন হিমালয় থেকে সঞ্জীবনী এনে শ্রীরামের ভাই লক্ষ্মণকে বাঁচিয়েছিলেন হনুমান, বার্তিমিউর দৃষ্টিশক্তি ফিরিয়েছিলেন প্রভু যিশু, তেমনই একজোট হয়ে, দু’‌দেশের মানুষের স্বার্থে, তাঁদের আশীর্বাদ নিয়ে এই মহাসঙ্কট কাটিয়ে উঠবে ভারত ও ‌ব্রাজিল।’‌
আমেরিকা, ব্রাজিল–‌সহ ৩০টি দেশ হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের জন্য ভারতের মুখাপেক্ষী হয়ে আছে। হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা একেবারে না উঠলেও, কিছুটা শিথিল হয়েছে। দেশের স্বার্থকে অগ্রাধিকার দিয়ে, যে দেশগুলোতে আক্রান্তের হার উল্লেখযোগ্যভাবে বেশি, সেখানে এই ওষুধ পাঠাতে সম্মত হয়েছে ভারত।  ‌

জনপ্রিয়

Back To Top