আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ টানা ৩০ ঘণ্টা পর শেষ হল শ্রীনগরের করণনগরে সিআরপিএফ–এর ক্যাম্পের সংঘর্ষ। খতম হয়েছে দুই লস্কর জঙ্গি। একথা জানিয়েছেন জম্মু–কাশ্মীরের আইজি শ্যামপ্রকাশ পানি। তিনি বলেছেন, মৃত জঙ্গিদের কাছে প্রচুর অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার হয়েছে। একজন সিআরপিএফ জওয়ান জখম হলেও তিনি বিপন্মুক্ত। আরও কোনও জঙ্গি লুকিয়ে আছে কিনা তা জানতে এখন চলছে এলাকাজুড়ে তল্লাশি। সবাইকে নিরাপদে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে অন্যত্র। শ্রীনগরের ব্যস্ততম এলাকা লাল চওকের মতো জায়গায় এই হামলা হওয়ার জন্যই সংঘর্ষ শেষ হতে এত সময় লেগেছে বলে জানিয়েছেন পানি। অভিযান সফল হওয়ায় সিআরপিএফ বাহিনীকে অভিনন্দন জানিয়েছেন রাজ্য পুলিসের কমিশনার শেষপাল বৈদ।

সিআরপিএফ–এর আইজি রবিদীপ সাহানিও জওয়ানদের অভিনন্দন জানিয়েছেন। সোমবারই শহিদ হন মোজাহিদ খান নামে এক কনস্টেবল। তিনি বিহারের আরার বাসিন্দা। সোমবার ভোর সাড়ে ৪টে নাগাদ  সিআরপিএফ–এর ২৩ নম্বর ব্যাটেলিয়নের সদর দপ্তরে অস্ত্রশস্ত্রবোঝাই ব্যাগ এবং একে –৪৭ নিয়ে হামলা চালায় দুই জঙ্গি। কিন্তু রক্ষীরা আগেই তাদের দেখে গুলি চালালে তারা পালিয়ে ক্যাম্প লাগোয়া একটি বাড়িতে লুকিয়ে পড়ে দুই জঙ্গি। তারপর থেকে টানা ৩০ ঘণ্টা ধরে চলে সেনা–জঙ্গি সংঘর্ষ। সিআরপিএফ ছাড়া রাজ্য পুলিস এবং এসওজি যোগ দেয় অভিযানে। সোমবারই টেলিফোনে লস্কর জঙ্গি মেহমুদ শাহ হামলার দায় স্বীকার করেছিল। 

 

 

‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top