আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ উত্তরপ্রদেশে একের পর এক নারী নির্যাতন নিয়ে বারবার সরব হয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। ‌বিশেষত হাথরস কাণ্ড নিয়ে সে রাজ্য ও কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের দিকে আঙুল তুলেছেন। এ রাজ্যে তাই প্রচারে নেমে বিজেপি–র পাল্টা অভিযোগ, বাংলায় মেয়েরা সুরক্ষিত নন। 
এবার মমতার হয়ে তার জবাব দিতে মাঠে নামলেন রাজ্যের মহিলা ও শিশু কল্যাণ মন্ত্রী শশী পাঁজা। মহিলাদের জন্য রাজ্যে ২০১১ থেকে কী কী ব্যবস্থা হয়েছে, তুলে ধরলেন তার খতিয়ান। একটি সাংবাদিক সম্মেলনে পাঁজা বললেন, মমতাই বাংলার প্রথম রাজনীতিক, যিনি মহিলাদের ক্ষমতায়ন নিয়ে সরব হয়েছেন। মহিলাদের জন্য বাংলা যা যা প্রকল্প হয়েছে, তার সব বলার জন্য একটি সাংবাদিক সম্মেলন যথেষ্ট নয়। 
মন্ত্রী শশী পাঁজার কথায়, গত বছর পরিবারের সবথেকে বয়োজ্যেষ্ঠ মহিলার নামে স্বাস্থ্য সাথী কার্ড করার ব্যবস্থা করেছে সরকার। মেয়েদের বিয়েতে সাহায্যের জন্য আনা হয়েছে রূপশ্রী প্রকল্প। পাঁচ লক্ষা ৫৮ হাজার জন এই প্রকল্পের সুবিধা পেয়েছেন।
এমনকী মহিলা নিরাপত্তা নিয়েও রাজ্য সরকার সজাগ। শশী জানালেন, ২০১১ সালের পর থেকে গোটা রাজ্যে ৪৮টি মহিলা থানা তৈরি করা হয়েছে। মহিলাদের সাহায্যের জন্য। আর মহিলা নির্যাতন, হেনস্থার দ্রুত বিচারের জন্য রাজ্য জুড়ে ফাস্টট্র‌্যাক আদালতও তৈরি করা হয়েছে। যদিও বিজেপি এসবে কান দিতে নারাজ। তাদের দাবি, রাজ্যে মহিলা নির্যাতনের বিচারই হচ্ছে না। 

জনপ্রিয়

Back To Top