প্রসেনজিৎ শীল, কোচবিহার, ২৪ জুন- সঙ্ঘাত চান না। তাই বিজেপি কর্মী- সমর্থকদের বিক্ষোভের মুখে পড়েও শান্তির বার্তা দিয়ে ফিরে এলেন তৃণমূলের রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সি। সোমবার কোচবিহারের শীতলকুচিতে দলীয় কর্মসূচিতে যোগ দেওয়ার আগে সুব্রত–‌সহ অন্য নেতাদের ঘিরে বিক্ষোভ দেখায় বিজেপি। সে নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা ছড়ায়। তাতেই ফিরে আসার সিদ্ধান্ত নেন সুব্রত। শান্তির স্বার্থেই এহেন সিদ্ধান্ত বলে জানিয়েছেন তিনি। অন্যদিকে, এদিন মাথাভাঙাতেও তৃণমূলের সভায় কোচবিহার জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদের চেয়ারম্যান কল্যাণী পোদ্দারের উপস্থিতি ঘিরে দলের কিছু কর্মী সমর্থকের মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়। 
রবিবারই দলের জেলাস্তরের নেতা ও কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করতে কোচবিহারে পৌঁছন তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্য সভাপতি তথা কোচবিহার জেলার পর্যবেক্ষক সুব্রত বক্সি। প্রথমে শীতলকুচি কমিউনিটি হলে কর্মিসভা ছিল। সেখানে যোগ দিতে যাওয়ার সময় মাথাভাঙার জটামারি এলাকায় সুব্রত সহ  জেলা সভাপতি বিনয়কৃষ্ণ বর্মন, কার্যনির্বাহী সভাপতি পার্থপ্রতিম রায়, উত্তরবঙ্গ উন্নয়নমন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ, বিধায়ক মিহির গোস্বামীর পথ আটকে বিক্ষোভ দেখানো হয়। শেষ পর্যন্ত শীতলকুচিতে না গিয়ে মাথাভাঙায় ফিরে আসেন ওঁরা। এরপর মাথাভাঙায় দলীয় কার্যালয়ে দ্বিতীয় বৈঠক করতে গেলে সেখানেও কোচবিহার জেলা প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের চেয়ারপার্সন তথা তৃণমূল নেত্রী কল্যাণী পোদ্দার ও তাঁর স্বামী মাথাভাঙা পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান চন্দন দাসকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন কর্মীরা। অভিযোগ, কল্যাণী ও তাঁর স্বামী অবৈধ উপায়ে প্রচুর সম্পত্তি করেছেন। বিক্ষোভের জেরে শেষ পর্যন্ত বৈঠক থেকে বেরিয়ে যান কল্যাণী ও তাঁর স্বামী চন্দন দাস। এরপর বৈঠক শুরু হয়। মাথাভাঙায় বৈঠক শেষ করে দিনহাটাতেও কর্মী বৈঠক করেন সুব্রত বক্সি। ‌
এদিন বিধানসভায় শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চ্যাটার্জি বলেন, যাঁরা কালো পতাকা দেখালেন, তাঁরা গণতন্ত্রে কালো মুখ হিসেবেই পরিচিত হচ্ছেন। আমরা চিরকালই মানুষের ওপর আস্থা রাখি। ডান্ডা ও অস্ত্র নিয়ে বাহুবলীদের মতো আচরণে আমরা বিশ্বাসী নই। শুধু সুব্রত বক্সিই কেন, একজন তৃণমূল কর্মী ও প্রশাসনিক কর্তাকেও যদি এইভাবে বিক্ষোভ দেখানো হয়, তাহলে মানুষ সমর্থন করতে পারে না। প্রশাসনের দুর্বলতা থাকলে সেটা প্রশাসন দেখবে। প্রশাসনের কাছে জানতে চাইব, তাঁদের কাছে এরকম খবর ছিল কিনা। 

ফিরে যাচ্ছেন সুব্রত বক্সি। ছবি: প্রতিবেদক

জনপ্রিয়

Back To Top