দীপঙ্কর নন্দী
আন্তর্জাতিক যুব দিবসে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি জানালেন, যখন দেশে বেকারির হার ২৪ শতাংশ, তখন রাজ্যে বেকারির হার কমেছে ৪০ শতাংশ। মঙ্গলবার তিনি টুইটে লিখেছেন, ‘‌অতীতে বহুবার বাংলার যুব সম্প্রদায় ভারতকে নেতৃত্ব দিয়েছে। ভবিষ্যতেও তারাই সেই কাজটি করবে। আমাদের সরকার ‌কর্মসাথী নামে একটি নতুন প্রকল্প চালু করেছে। এই প্রকল্পে লক্ষ লক্ষ বেকার যুবককে সহজ শর্তে ঋণ ভর্তুকি দেওয়া হবে। তাঁদের আত্মনির্ভর করাই আমাদের প্রধান লক্ষ্য। আমরা আমাদের যুবকদের নিয়ে গর্বিত। তাঁরাই আমাদের ভবিষ্যৎ। আমি মনে করি নতুন প্রজন্মই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে। এখানকার যুবকরা প্রতিভাবান ও কঠোর পরিশ্রমী। তাঁদের আজকের স্বপ্ন আগামী দিনে সফল হবেই।’‌
একই দিনে তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সাংসদ অভিষেক ব্যানার্জি টুইট করে যুবকদের উদ্দেশে বলেছেন, ‘‌আজকের এই দিনে যুবযোদ্ধা বাহিনীকে সম্মান জানাতে পেরে গর্ব বোধ করছি। বাংলার যুবশক্তির উদ্যোগে এই যুবযোদ্ধারা নিঃস্বার্থভাবে কোভিড ও আমফানের জোড়া সঙ্কট পর্বে বিপন্নদের পাশে পৌঁছে গেছেন। তাঁদের দিকে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। ‘‌বাংলার যুবশক্তি’‌ আরও সামাজিক কাজের সঙ্গে নিজেদের শামিল করেছেন।’‌
আন্তর্জাতিক যুব দিবসে নাম না করে বিজেপিকে আক্রমণ করে অভিষেক টুইটে লিখেছেন, ‘‌যে সব শক্তি আমাদের সংস্কৃতির ক্ষতি করতে চায় এবং ভ্রান্ত প্রচারকে হাতিয়ার করে ঘৃণা ছড়াতে চায়, বাংলার সামাজিক সমন্বয় ও সংহতিকে নষ্ট করতে চায়, এই সব শক্তির বিরুদ্ধে আসুন আমরা প্রতিরোধ গড়ে তুলি।’‌
রাজ্যের ক্রীড়া ও যুব কল্যাণ দপ্তর থেকে যুবকদের জন্য বহু প্রকল্প চালু করা হয়েছে। আগামী দিনে আরও নতুন প্রকল্প চালু করা হবে বলে মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস জানিয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রী ইতিমধ্যে কয়েকবারই বলেছেন, ‘‌বেকারের সংখ্যা আরও কমিয়ে আনা হবে। 

 

বাংলায় যে মেধা আছে, তার জন্য আগামী দিনে অন্য রাজ্যে যেতে হবে না। সমস্ত সুযোগ সুবিধে এখানে করে দেওয়া হচ্ছে। উন্নয়ন হচ্ছে। আগামী দিনে এই উন্নয়নের জন্যই আরও টাকা খরচ করা হবে। কেন্দ্র কোনও সাহায্য করছে না। একাই আমরা উন্নয়ন করছি। বিজেপি নেতারা বাংলার উন্নয়ন চোখে দেখতে পাচ্ছেন না। তাঁরা অপপ্রচার ও কুৎসা করছেন। এর বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। সোশ্যাল মিডিয়ায় যুবকদের আরও অংশ নিতে হবে। আমাদের যুব ও ছাত্ররা বিজেপির অপপ্রচারের বিরুদ্ধে যোগ্য জবাব দিচ্ছে।’‌
 ২৮ আগস্ট লকডাউন থাকছে না। তাই তৃণমূল ছাত্র পরিষদের কর্মীরা ধরে নিয়েছেন তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবসে নেত্রীর কাছ থেকে বার্তা পাওয়া যাবে। ভার্চুয়াল সভা হওয়ার সম্ভাবনা আছে।‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top