আজকালের প্রতিবেদন
রাজ্যের প্রাপ্য ২২০০ কোটি টাকা আটকে রেখেছে কেন্দ্রের মোদি সরকার। গুরুতর এই অভিযোগ তুললেন রাজ্যের অর্থমন্ত্রী ড.‌ অমিত মিত্র। আজ এখানে শিল্প সম্মেলন উপলক্ষে দিঘা কনভেনশন সেন্টারে এসেছিলেন তিনি। কাল, বুধবার আন্তর্জাতিক মানের এই সম্মেলনের উদ্বোধন। তার খুঁটিনাটি প্রস্তুতি ঘুরে দেখেন অর্থমন্ত্রী। পরে সাংবাদিকদের অমিতবাবু বলেন, ‘‌আমরা আরও ভাল পরিকাঠামো গড়ে তুলতে পারি। কিন্তু কেন্দ্র আমাদের রাজ্য থেকে জিএসটি ও আয়কর বাবদ যে টাকা তুলে নিয়ে যাচ্ছে, তা থেকে আমাদের প্রাপ্য টাকা  দিচ্ছে না।৩ মাস ধরে আটকে রেখেছে। এ মাসেও তা না দিলে সেটার পরিমাণ ৩ হাজার কোটি টাকায় দাঁড়াবে।’‌ তাঁর বক্তব্য, এই বিপুল পরিমাণ টাকা পেলে রাজ্য সরকার সামাজিক পরিকাঠামোর জন্য খরচ করতে পারত। গ্রামেগঞ্জে আরও উন্নয়ন হত। উত্তরবঙ্গ বা দিঘার মতো আরও কয়েকটি জায়গায় কনভেনশন সেন্টার তৈরি করা যেত। তাতে শিল্পের আরও প্রসার ঘটত।
এদিকে সম্প্রতি এক বণিকসভার অনুষ্ঠানে রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড় দাবি করেন, রাজ্যের জিএসটি সমস্যা মেটাতে পেরেছেন তিনি। অর্থমন্ত্রীকে এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে তাঁর জবাব, ‘‌আমি হতবাক, বিস্মিত। উনি কী করে এই সমস্যা মেটাবেন। ওঁর কোনও এক্তিয়ার বা  আওতাই নেই। তাহলে আমি কেন এ নিয়ে আলোচনা করব।’‌ উল্লেখ্য, ১৮ ডিসেম্বর দিল্লিতে অন্য রাজ্যগুলির অর্থমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন ড.‌ অমিত মিত্র। সেখানে জিএসটি নিয়ে তাঁরা সোচ্চার হবেন।
‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top