যজ্ঞেশ্বর জানা, খেজুরি: খেজুরির‌ বাঁশগোড়া বাজারে সোনার দোকানে ডাকাতির চেষ্টা। বাধা পেয়ে ডাকাতরা অস্ত্রের কোপ বসাল এক সিভিক ভলান্টিয়ারের মাথায়। ভোররাতের এই ঘটনার পর আহত ওই সিভিক ভলান্টিয়ারের চিৎকারে ছুটে আসেন স্থানীয় মানুষ এবং পুলিশকর্মীরা। পরিস্থিতি বেগতিক বুঝে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। খুনের চেষ্টার মামলা রুজু করে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। খেজুরি থানার ওসি গোপাল পাঠক বলেন, ‘‌আহত সিভিক ভলান্টিয়ারকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়েছে। যে দোকানের কাছে এই ঘটনাটি ঘটেছে, তার সামনে বসানো সিসিটিভি এবং  বাজারে থাকা সিসিটিভি–র ফুটেজ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। দ্রুত অভিযুক্তদের খুঁজে বের করা হবে।’‌ আহত সিভিক ভলান্টিয়ারের নাম অনিরুদ্ধ বাগ। খেজুরি থানায় তিনি কর্মরত ছিলেন। 
রোজকার মতো বৃহস্পতিবার রাতে বাঁশগোড়া বাজারে টহল দিচ্ছিলেন দুই সিভিক ভলান্টিয়ার। রাত তিনটে নাগাদ একটি সোনার দোকানের সামনে ডাকাতির জন্য জড়ো হয় ৫ জনের একটি ডাকাত দল। তাদের দেখতে পেয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য এগিয়ে যান আহত সিভিক ভলান্টিয়ার অনিরুদ্ধ। অভিযোগ, কথা বলার সময় আচমকা পিছন থেকে ডাকাত দলের একজন ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপ মারে তঁার মাথায়। তঁার চিৎকারে কর্তব্যরত অপর সিভিক ভলান্টিয়ার এবং স্থানীয় অজয়া কালী মেলা ফেরত মানুষজন ছুটে আসেন। পরিস্থিতি বেগতিক বুঝে অনিরুদ্ধকে ফেলে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। এরপর খবর পেয়ে খেজুরি থানার পুলিশ গিয়ে আহত সিভিক ভলান্টিয়ারকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য তমলুক হাসপাতালে পাঠায়।আহত সিভিক ভলান্টিয়ার অনিরুদ্ধ বাগ। ছবি: প্রতিবেদক

জনপ্রিয়

Back To Top