অগ্নি পান্ডে: এবার বিশ্বকাপ জেতার পরপরই তাঁর কন্যাসন্তানের জন্ম হয়। ‘ফ্রান্স’ শব্দটির প্রতি দুর্বলতা তাঁর আগে থেকেই। একে তো ফ্রান্সের বিশ্বজয় পাশাপাশি তাঁর দেশ ক্যামেরুন দীর্ঘদিন ফ্রান্সের উপনিবেশ ছিল। সবমিলিয়েই ‘ফ্রান্স’ শব্দের প্রতি তাঁর টান রয়েছে। তাই সদ্যোজাত কন্যার নাম রেখেছেন ‘ফ্রান্স’। এবারের কলকাতা লিগ জিতে মেয়ে ফ্রান্সকেই উৎসর্গ করতে চান।
কে তিনি? যাঁকে ঘিরে মঙ্গলবার সকালে সবুজ–মেরুন তাঁবুতে যাবতীয় উৎসাহ। যাঁর সঙ্গে সেলফি তোলার জন্য ছটফটানি। তিনি শুধু হাসিমুখে ভক্তদের সব আবদার মেনে নিলেন। হাসতে হাসতে বলেই ফেললেন, ‘এখনও পর্যন্ত ভারতে কোনও খেতাব জিতিনি। এবার কলকাতা লিগ জিতে আমি আমার মেয়ে ফ্রান্সকে উৎসর্গ করতে চাই। যেভাবেই হোক জিততেই হবে আমাদের।’
বুধবার কাস্টমসের বিরুদ্ধে খেলতে নামার আগে এমনই বললেন মোহনবাগানের গোলমেশিন ডিপান্ডা ডিকা। ইতিমধ্যেই কলকাতা লিগে ৮ ম্যাচে ১০টি গোল করা হয়ে গেছে ডিপান্ডার। এবারও কলকাতা লিগে সর্বোচ্চ গোলদাতার সম্মান হাতছানি দিচ্ছে। তিনি সে সবে অবশ্য আমল দিতে চান না। ডিপান্ডার মতে, ‘আমি ব্যক্তিগত সাফল্যের থেকে দলগত সাফল্যে বিশ্বাসী। শুনেছি, ৮ বছর এই কলকাতা লিগ ক্লাব পায়নি। এবার সেটা আনতেই হবে আমাদের সমর্থকদের জন্য। হ্যাঁ, দলের সাফল্যে যদি আমার একটুও ভূমিকা থাকে, তাহলেই আমার খুব ভাল লাগে। তবে সবচেয়ে বড় ব্যাপার হল আগে দলের সাফল্য।’
মঙ্গলবার সন্ধেয় ইস্টবেঙ্গলকে হারিয়ে মোহনবাগানের কাজ সহজ করে দিয়েছে মহমেডান। বুধবার জিতলেই চ্যাম্পিয়ন। কিন্তু সকালে ডিপান্ডা জানিয়েছিলেন, ‘অন্য দল কে কোথায় কী করছে সেদিকে নজর দেব না আমরা। আমাদের কাজ হল বুধবার জেতা। সেটাই আমাদের ড্রেসিংরুমের লক্ষ্য। সেই লক্ষ্যে আমরা স্থির রয়েছি।’ পাশাপাশি জানাতে ভুললেন না যে, ‘না, আমাদের ড্রেসিংরুমে কোনও আত্মতুষ্টির জায়গা নেই। আট বছর পর খেতাব জিততে চলেছি, কেন আত্মতুষ্টি থাকবে ড্রেসিংরুমে? কোনও প্রশ্নই ওঠে না।’
আই লিগে দুবার সর্বোচ্চ গোলদাতার সম্মান পেয়েছেন। কলকাতা লিগে একবার পাওয়া হয়ে গেছে। এবারও সেই সম্মান হাতের নাগালে এসে গেছে। মোহনবাগানকে জিততে হলে তো তাঁকেই গোল করতে হবে। দল সবসময় তাঁর দিকেই তাকিয়ে থাকে। হাসছেন ডিপান্ডা, ‘আমি জানি আমার কী কাজ। সেটা 

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
জনপ্রিয়

Back To Top