দেবাশিস দত্ত: বড় নাম চাই। এবং স্পিনারদের তৈরি করে দিতে পারবেন, এই আশাতেই নিউজিল্যান্ডের প্রাক্তন অধিনায়ক ড্যানিয়েল ভেট্টরিকে স্পিন বোলিং কোচ হিসেবে নিয়োগ করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার পরই বোলিং কোচের দায়িত্ব থেকে কোর্টনি ওয়ালশকে সরিয়ে দিয়েছিল বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। এমনকী ওই সময় স্পিন বোলিং কোচ সুনীল যোশিকেও বরখাস্ত করা হয়েছিল। ওয়ালশ বা যোশি— দুই বোলিং কোচের তত্ত্বাবধানে বাংলাদেশের বোলিং বিশেষ উন্নতি করতে না পারার জন্যই ভেট্টরিকে স্বাগত জানিয়ে নিয়ে আসা হয়েছে। বিনিময়ে মুশফিকুর রহিমদের বোর্ডকে বিশাল অঙ্কের টাকা খরচ করতে হচ্ছে।
খরচে আপত্তি নেই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড কর্তাদের। দেশের ক্রিকেটপ্রেমীরা চান, বিখ্যাত বিদেশি প্রাক্তন ক্রিকেটারদের হাতেই থাকুক বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। তাতে যদি কোনও বিখ্যাত প্রাক্তন ক্রিকেটারকে বাজার দরের চেয়ে বেশি দিতে হয়, তাতে আপত্তি নেই কর্তাদের।
আপাতত ভেট্টরিকে দৈনিক বেতন দিতে হচ্ছে ৪৩০০ মার্কিন ডলার। বছরে ১০০ দিনের কাজ। প্রতিবার নিউজিল্যান্ড থেকে যাতায়াতের বিমানের টিকিট দিতে হবে। প্রথম শ্রেণির বিমান, বলা বাহুল্য। ভারতীয় মুদ্রায় ১০০ দিনের জন্য ভেট্টরিকে শুধু বেতন বাবদ ৩ কোটি ১ লক্ষ টাকা দিতে হবে। হোটেল, থাকা–‌খাওয়া ও গাড়ির খরচ আলাদা। সাকিবের পাশাপাশি আরও অন্তত ২/‌৩ জন ভাল স্পিনার তুলে আনতে পারবেন ভেট্টরি, কর্তারা এমন আশা করছেন। ‌‌‌

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
জনপ্রিয়

Back To Top