আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ বিজেপি বিধায়কের উপর থেকে সাম্প্রদায়িক হিংসার সাতটি মামলা তুলে নিতে চলেছে যোগী আদিত্যনাথ সরকার। মীরাট জেলার সারধনার বিধায়ক সঙ্গীত সোমের বিরুদ্ধে ২০১৩ থেকে ২০১৭ সালের মধ্যে মুজফফরনগর, সাহারানপুর, মীরাট, গৌতম বুদ্ধ নগরে সাতটি সাম্প্রদায়িক হিংসার মামলা দায়ের হয়েছিল। ২০০৩ সালে মুজফফরপুরে সাম্প্রদায়িক হিংসায় উস্কানি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল সঙ্গীত সোমের বিরুদ্ধে। এমনকি সোমের বিরুদ্ধে ১৪৪ ধারা ভঙ্গের অভিযোগও ছিল সাহারানপুর, গৌতম বুদ্ধ নগরে। 
এছাড়া ২০১৩ সালে মুজফফরপুর ও সংলগ্ন এলাকায় যে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা লেগেছিল তাতে ৪০ হাজার মানুষ গৃহহীন হয়েছিলেন। মারা যান ৬৫ জন। তৎকালীন সমাজবাদী পার্টি সরকার ২০১৩ সালে এই দাঙ্গায় ১৪৫৫ জনের বিরুদ্ধে প্রায় ৫০০ মামলা দায়ের করেছিল। সমাজবাদী পার্টি ও বিএসপি সরকার যে সমস্ত বিজেপি বিধায়কের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক হিংসার মামলা দায়ের করেছিল, তা ইতিমধ্যেই তুলতে শুরু করেছে উত্তরপ্রদেশের বিজেপি সরকার। তালিকায় নবতম সংযোজন সঙ্গীত সোম। তার বিরুদ্ধে সাহারানপুরের দেওবন্দ, মুজফফরনগরে কাটাওলি, কোতয়ালি সিখারা, মীরাটের সারধনা ও গৌতম বুদ্ধ নগরের বিশারা পুলিশ স্টেশনে মামলা দায়ের করা আছে। রাজ্য প্রশাসনের বিশেষ সচিব রামবিলাস সিং চার জেলায় সঙ্গীত সোমের নামে যে মামলাগুলি রয়েছে তা তুলে নেওয়ার কথা বলেছেন। আদালতের নির্দেশ পেলেই মামলাগুলি তুলে নেওয়া হবে। সঙ্গীত সোম যেমন বলেছেন, ‘‌রাজনৈতিক শত্রুতার বশেই সমাজবাদী পার্টি মামলাগুলি করেছিল। অনেক মামলায় পুলিশ চার্জশিট দিতে পারেনি। বর্তমান সরকার ভুয়ো মামলাগুলি তুলে নিলে হেনস্থা থেকে মুক্তি পাব।’‌ ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top