আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ ফের জাতপাতের প্রসঙ্গ উঠে এল ভোটে। নরেন্দ্র মোদিকে ‘‌ভুয়ো অনগ্রসর জাতির সদস্য’‌ বলে কটাক্ষ করলেন তেজস্বী যাদব। বুধবার মহারাষ্ট্রের সোলাপুরে একটি নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে মোদি নিজেকে অনগ্রসর শ্রেণিভুক্ত বলে দাবি করেছিলেন। পাল্টা জবাবে বৃহস্পতিবার সকালেই আরজেডি নেতা বলেছেন, ‘‌নরেন্দ্র মোদিজি জন্মের পর থেকে ৫৫ বছর বয়স পর্যন্ত উচ্চ শ্রেণির মানুষ ছিলেন। হঠাৎই একদিন তিনি অনগ্রসর জাতির সদস্য হয়ে গেলেন। প্রকৃত অনগ্রসর শ্রেণির মানুষরা মিথ্যাবাদী, কৃত্রিম হয় না। আপনি কি অনগ্রসর জাতির মানুষদের এতটাই বোকা ভাবেন। আপনি কী করেছেন অনগ্রসর শ্রেণির মানুষের জন্য?‌’ 
এরপরই কেন্দ্রের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মীদের জাত প্রসঙ্গ উত্থাপন করে তেজস্বী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরের কর্মীরা, কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বা অধ্যাপক, এমনকি কোনও সাংবিধানিক ‌প্রতিষ্ঠানের ডিরেক্টররাও অনগ্রসর শ্রেণিভুক্ত নয়। অনগ্রসর শ্রেণিদের জন্য কেন সেভাবে আসন সংরক্ষিত করা হয়নি সেব্যাপারে মোদির কাছে প্রশ্ন তুলেছেন লালুপুত্র। 
প্রসঙ্গত, রাহুল গান্ধী সম্প্রতি মহারাষ্ট্রে একটি প্রচারসভায় বলেছিলেন, ‘‌মোদি নামের প্রত্যেকেই চোর’‌। তার জবাবেই বুধবার সোলাপুরে ওই দাবি করেন মোদি, যার প্রেক্ষিতে তাঁর সমালোচনা করেন তেজস্বী যাদব। এদিকে মোদির বিরুদ্ধে অবমাননাকর কথা বলায় বৃহস্পতিবারই রাহুলের বিরুদ্ধে পাতিয়ালা হাউস কোর্টে ফৌজদারি মামলা রুজু করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী জোগিন্দর টুলি। বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রী সুশীল মোদিও রাহুলের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা দায়ের করেছেন বিহারের একটি কোর্টে।       ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top