আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ এদেশের রাজনীতিকদের বিরুদ্ধে জালিয়াতি, টাকা নয়ছয়ের অভিযোগ আকছাড় উঠেছে। উঠেছে দুর্নীতির অভিযোগ। যৌন হেনস্থার অভিযোগও কিন্তু কম ওঠেনি। 
• বাবুলাল নাগার:‌ রাজস্থানের এই প্রাক্তন মন্ত্রীর বিরুদ্ধে ২০১৩ সালে যৌন হেনস্থার অভিযোগ ওঠে। এক মহিলা জানান, মন্ত্রী তাঁকে সরকারি চাকরির প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। তার পর চলেছিল যৌন হেনস্থা। বিরোধীদের তোপের মুখে মন্ত্রিত্ব ছাড়তে বাধ্য হন বাবুলাল।
• রাঘবজি লাখামসি সাভালা:‌ পরিচারিকাকে যৌন হেনস্থার অভিযোগ ওঠে। বাধ্য হয়ে মন্ত্রিত্ব ছাড়েন মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন এই মন্ত্রী।
• গোপাল কাণ্ডা:‌ এক বিমানসেবিকা হরিয়ানার এই মন্ত্রীর বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ তোলেন। তিনি আত্মঘাতী হন। সুইসাইড নোটে নাম লেখেন কাণ্ডার। মন্ত্রিত্ব থেকে ইস্তফা দিতে বাধ্য হন তিনি।
• এনডি তিওয়ারি:‌ এককালে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী ছিলেন। ২০০৯ সালে অন্ধ্রপ্রদেশের রাজ্যপাল থাকা কালীন যৌন হেনস্থার অভিযোগ ওঠে। পদ থেকে সরতে হয় এই কংগ্রেস নেতাকে।
• মাহিপাল মাদেরনা:‌ ২০১১ সালে ভানওয়ারি দেবীর যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত হন রাজস্থানের এই প্রাক্তন মন্ত্রী। ভানওয়ারি দেবী নিখোঁজ হন। তাঁর স্বামী মাদেরনার বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন। 
• অমরমণি ত্রিপাঠি:‌ কবি মধুমিতা শুক্লাকে খুনের অভিযোগে জেলে যান উত্তরপ্রদেশের এই মন্ত্রী। অভিযোগ, মধুমিতা ত্রিপাঠির সন্তানের মা হতে চলেছিলেন। গর্ভপাতে জোর দেন। তিনি রাজি হননি বলে গুলি করেন প্রাক্তন মন্ত্রী। 

ছবি:‌ এনডি তিওয়ারি

জনপ্রিয়

Back To Top