আজকাল ওয়েবডেস্ক: করোনা যখন মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে তখন তার পরীক্ষা করতে বেসরকারি পরীক্ষাগারগুলি লাগামছাড়া দাম নিচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এই অত্যাধিক ফি নিয়ে থাকলে কেন্দ্রের লাগাম টানা উচিত বলে এদিন জানাল দেশের সর্বোচ্চ আদালত। বুধবার সুপ্রিম কোর্ট কেন্দ্রকে নির্দেশ দিয়েছে, এমন একটি ব্যবস্থা তৈরি করতে হবে যাতে করোনা পরীক্ষার জন্য অনুমোদনপ্রাপ্ত বেসরকারি পরীক্ষাগারগুলি জনগণের কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা না নিতে পারে। আর তা নিশ্চিত করতে হবে।
সুপ্রিম কোর্ট এদিন স্পষ্ট জানিয়ে দেয়, সরকার যদি এই ব্যবস্থা না করতে পারে তাহলে প্রয়োজনে বেসরকারি ল্যাবের নেওয়া অতিরিক্ত ফি সরকারকে পরিশোধ করতে হবে। সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি অশোক ভূষণ এবং এস রবীন্দ্র ভাটের বেঞ্চকে সরকার জানায়, ইতিমধ্যে ১১৮টি ল্যাবের মাধ্যমে প্রত্যেকদিন ১৫ হাজার করে নমুনা পরীক্ষা করা হচ্ছে। এমনকী ৪৭টি বেসরকারি ল্যাবকেও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।
আদালত সূত্রে খবর, আইনজীবী শশাঙ্ক দেও সুধী দেশের সমস্ত মানুষের জন্য বিনামূল্যে করোনাভাইরাস পরীক্ষা পরিষেবা চালুর দাবি জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করেন। সুধী আবেদনে বলেন, দেশের মানুষের জন্য এই পরীক্ষার ব্যয় অনেক বেশি, এই পরীক্ষা বিনামূল্যে করা হোক। সরকারের হয়ে সওয়াল করতে উঠে সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতা বলেন, বর্তমান পরিস্থিতির নিরিখে ঠিক কতগুলি ল্যাবের প্রয়োজন হতে পারে, সে ব্যাপারে সরকার এখনও নিশ্চিত নয়।
এই পরিস্থিতিতে সুপ্রিম কোর্ট জানিয়ে দেয়, সরকারের উচিত এই ব্যাপারে একটি নির্দিষ্ট পথ অবলম্বন করা। যেখানে বেসরকারি ল্যাবগুলি অতিরিক্ত টাকা নিতে পারবে না। তারা যদি অতিরিক্ত টাকা নেয়, তা হলে সরকারকেই সেই টাকা পরিশোধ করতে হবে।

জনপ্রিয়

Back To Top