আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ বাংলায় প্রচারের সময়সীমা ২৪ ঘণ্টা কমিয়ে দেওয়ায় নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে খড়্গহস্ত হল বিএসপি। বৃহস্পতিবার নির্বাচন কমিশন এবং মুখ্য নির্বাচন কমিশনারের বিরুদ্ধে তোপ দেগে বিএসপি সুপ্রিমো মায়াবতী বলেছেন, ‘‌এটা খুবই দুঃখজনক যে নির্বাচন কমিশন পশ্চিমবঙ্গে প্রচারে নিষেধাজ্ঞা চাপিয়েছে আজ রাত ১০ থেকে কারণ মোদির দুটি মিছিল আছে। ওদের যদি নিষেধাজ্ঞা চাপানোর দরকারই ছিল, তাহলে আজ সকাল থেকে নয় কেন?‌ এটা অনুচিত যে নির্বাচন কমিশন চাপে কাজ করছে। আমরা এর কড়া ভাষায় নিন্দা করছি। এটা প্রমাণ করছে যে একজন পক্ষপাতদুষ্ট নির্বাচন কমিশনারের নেতৃত্বে নির্বাচন স্বচ্ছ হতে পারে না। এটা গণতন্ত্রের পক্ষে ভয়ঙ্কর।’‌
একইসঙ্গে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা ব্যানার্জির পাশে দাঁড়িয়ে উত্তর প্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিএসপি সুপ্রিমো বলেছেন, ‘‌লোকসভা নির্বাচনের শুরু থেকেই পশ্চিমবঙ্গ খবরের শিরোনামে। এজন্য সম্পূর্ণ দায়ী বিজেপি এবং আরএসএস। প্রতিনিদের নির্বাচনী হিংসা প্রমাণ করেছে যে নরেন্দ্র মোদি এবং তাঁর শিষ্য অমিত শাহ মমতা ব্যানার্জির সরকারের পিছনে লেগে আছেন দীর্ঘ দিন ধরে। মমতা ব্যানার্জিকে এভাবে লক্ষ্য করা অন্যায় এবং এটা প্রধানমন্ত্রীকে শোভা পায় না। বিভিন্ন ধরনের ফন্দি খোঁজা হচ্ছে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আর মানুষ দেখছেন, কীভাবে তিনি সেগুলির বিরুদ্ধে লড়ছেন। বিজেপি পশ্চিমবঙ্গের ইস্যুটাকে এতটাই ইন্ধন দিতে চাইছে যাতে মানুষ তাদের বিরুদ্ধে ওঠা অন্যান্য ইস্যুগুলি ভুলে যায়’‌। মমতা ব্যানার্জিকে এভাবে সমর্থন জানিয়ে তাঁর পাশে মায়াবতীর দাঁড়ানো রাজনৈতিক সমীকরণের গুরুত্বপূর্ণ ইঙ্গিত বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। 
ছবি:‌ এএনআই           

জনপ্রিয়

Back To Top