আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ করোনাভাইরাসের আতঙ্কে শুধু সাধারণ মানুষ থেকে রাজনৈতিক নেতানেত্রী নয়, জঙ্গি এবং বিচ্ছিন্নতাবাদী দলগুলোও কাঁপছে। সেভাবেই মাওবাদী নেতা জলন্ধর রেড্ডি ওরফে কৃষ্ণ ভিডিও–বার্তায় মাওবাদী অধ্যুষিত অঞ্চলে শান্তির জন্য আবেদন করল। অন্ধ্র–ওডিশা সীমানা বিশেষ জোনাল কমিটিতে রাজ্য জোনাল কমিটির সদস্য কৃষ্ণ। রবিবার রাতে পাঠানো ওই ভিডিও–বার্তায় সে বলেছে, যতদিন পর্যন্ত সরকার এবং মানুষ ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়বে, ততদিন পর্যন্ত মাওবাদীরা কোনও সমস্যা করবে না। তবে নিরাপত্তা বাহিনী যদি কোনও আঘাত হানে তাহলে আত্মরক্ষায় পিছপা হবে না মাওবাদীরা। নিরাপত্তা বাহিনীর প্রতি ভিডিও–বার্তায় জলন্ধরের আর্জি মাওবাদীদের খোঁজে চিরুনি তল্লাশি না চালিয়ে মহামারীর হাত থেকে মানুষের সুরক্ষার চেষ্টা করুক তারা। তার অভিযোগ, জানুয়ারি থেকে নিরাপত্তা বাহিনী অন্ধ্র এবং ওডিশা সীমানায় মাওবাদী দমন অভিযান চালাচ্ছে। ওডিশার বেশ কিছু অঞ্চলে বাহিনী জোরদার তল্লাশি চালাচ্ছে। এমনকি দেশে কোভিড–১৯–এর বাড়বাড়ন্তের সময়ও তা থামেনি।
এওবিএসজেডসি–র সচিব কৈলাসমও চিঠিতে অভিযোগ করেছে, ভাইরাসের এই প্রকোপ বেড়েছে কারণ রাজ্যের সরকার দূষণ মোকাবিলা কড়া হাতে করেনি। কোভিড–১৯ রুখতে কী কী প্রয়োজনীয় সেই তথ্য প্রকাশ করেছে কৈলাসম।
যদিও অন্ধ্র প্রদেশ পুলিশ ওই চিঠি এবং ভিডিও–বার্তার সত্যতা যাচাই করে দেখছে। অন্ধ্র পুলিশের এক শীর্ষ কর্তার মতে, হাসপাতাল, টেলিসংযোগ ব্যবস্থা, রাস্তার উন্নয়ন, আদিবাসীদের কাছে সরকারি প্রকল্প পৌঁছে যাওয়ার ফলে তারা আর মাওবাদীদের কথা সেভাবে শুনছে না। যার ফলে তারা দিশাহারা হয়ে পড়ছে এবং সেকারণেই শান্তি স্থাপনের বার্তা দিয়েছে।      

জনপ্রিয়

Back To Top