আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ সরকার গঠন নাটকের শেষ নেই মহারাষ্ট্রে। মুখ্যমন্ত্রী কে হবেন, এই নিয়ে জোটসঙ্গী শিবসেনার সঙ্গে দ্বন্দ্বের মাঝে মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে ইস্তফা দিলেন দেবেন্দ্র ফড়নবিশ। রাজভবনে গিয়ে পদত্যাগ পত্র জমা দিয়েছেন তিনি। পদত্যাগ করার পর ফড়নবীশ বলেন, ‘মুখ্যমন্ত্রীর পদ ভাগাভাগি নিয়ে শিবসেনার সঙ্গে কোনও কথা হয়নি। ফোনে উদ্ধবের ঠাকরের সঙ্গে কথা বলেছি। আলোচনা চালানোর চেষ্টা করেছি। কিন্তু কোনও সিদ্ধান্ত পৌঁছতে পারিনি।’‌
শুক্রবার রাত পোহালেই শেষ হচ্ছে মহারাষ্ট্রের বর্তমান সরকারের মেয়াদ। রাজ্যে বিধানসভা ভোট মিটে গিয়েছে সেই কবে!‌ কিন্তু ভোটের আগে শিবসেনার সঙ্গে যা চুক্তি হয়েছিল, সেই চুক্তিতে জল ঢেলে দিয়েছে বিজেপি। ফলে ক্ষুব্ধ জোট শরিক শিবসেনা পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছে, ‌আড়াই বছরের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর পদ ভাগাভাগি করতে হবে।‌ নিজেদের দাবিতে অনড় থেকে শিবসেনা প্রধান উদ্ভব ঠাকরে বলেছেন, ‘‌মুখ্যমন্ত্রীর পদ দেওয়ার ব্যাপারে সম্মত হলে তবেই আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করুক বিজেপি।’‌ সঞ্জয় রাউত বলেছেন, যেহেতু পুরনো সরকারের মেয়াদ শেষ হচ্ছে, তাই মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে পদত্যাগ করা উচিত ফড়নবিশের। বিজেপিকে দুষে এনসিপি-র মুখপাত্র নবাব মালিক বলেছেন, মহারাষ্ট্রে রাষ্ট্রপতি শাসন জারির পরিস্থিতির দিকে ঠেলে দিচ্ছে বিজেপি।‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top