আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ ‌নাগরিক আইনের বিরুদ্ধে উত্তাল অসম, গুয়াহাটি। সোমবার লোকসভায় নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পাশ হওয়ার পর থেকেই অগ্নিগর্ভ উত্তর–পূর্বের একাধিক রাজ্য। কেন্দ্রের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখাতে দিয়ে সেখানে প্রাণ হারিয়েছেন বেশ কয়েকজন। বৃহস্পতিবার গুয়াহাটিতে মৃত্যু হয়েছে ১৭ বছরের একটি ছেলের। স্যাম স্ট্যাটফোর্ড। তবে বিক্ষোভ করতে গিয়ে পুলিশের গুলিতে নয়। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, একদল দুষ্কৃতি বিক্ষোভকারীদের ওপর গুলি চালায়। সেই গুলিতেই প্রাণ হারান ওই যুবক। স্থানীয় থানায় একটি অভিযোগও দায়ের করা হয়েছে। যদিও এখনও কোনও অভিযুক্তকেই গ্রেপ্তার করেনি পুলিশ।
 সংবাদমাধ্যম সূত্রে, গুয়াহাটির লতাশিল খেলার মাঠে নাগরিকত্ব বিলের প্রতিবাদে সামিল হতে এসেছিলেন জুবিন গর্গ। সেখানে জুবিনের গান শুনতেই গিয়েছিলেন স্যাম। অনুষ্ঠান শেষ হওয়ার পর বাড়ি ফিরছিলেন তিনি। রাস্তায় বিক্ষোভকারীদের সঙ্গেই ফিরছিলেন। সেই সময়ে চারজনের একটি দুষ্কৃতির দল গাড়ি নিয়ে এসে গুলি ছুঁড়তে থাকে। সেই গুলিতেই ঘায়েল হন স্যাম। স্যামের দেহ বাড়ি নিয়ে আসার পর তাঁকে ‘‌শহিদ’‌‌ বলে সম্বোধন করেন প্রতিবেশীরা। বিক্ষোভকারীরা। স্যামের বাবা বিজু স্ট্যাটফোর্ড সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছেন, ‘‌আমার ছেলে ড্রামার। গান বাজনা নিয়েই থাকে। বিক্ষোভ দেখাতে নয়, জুবিনের গান শুনতে গিয়েছিল ও।’‌ স্যামের শেষকার্যের পর স্লোগান ওঠে, ‘‌শহিদ, তোমাকে প্রণাম।’‌ তাঁর মৃত্যুর খবর পেয়ে পরিবারের সঙ্গে দেখা করেন জুবিনও। বোন মৌসুমি জানিয়েছেন, ‘‌ভাই জুবিনের ভক্ত। শহরে আসছে দেখে আর ঘরে থাকতে পারেনি। আমরা বারণ করা সত্ত্বেও জুবিনের গান শুনতে ছুটে গিয়েছিল।’‌ 
 

জনপ্রিয়

Back To Top