আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ অতিরিক্ত জরিমানার ‌নতুন ট্রাফিক আইনে ছড়িয়েছে আতঙ্ক। ছোটখাটো ভুল ভ্রান্তিতেও দিতে হতে পারে অতিরিক্ত জরিমানা। জরিমানার পরিমান দেখেই মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ছে সাধারণ মানুষের। দিতে হচ্ছে হাজার হাজার টাকা জরিমানা। কখনও কখনও তো লক্ষের গন্ডিও পার করেছে। আর তা থেকে বাঁচতে নানা রকম পন্থা খুঁজে বের করছেন মানুষ। একজন তো গাড়ির সমস্ত কাগজপত্র হেলমেটে সেঁটে রাস্তায় বেরিয়েছিলেন। আর এক মহিলা কোনও উপায় না দেখে ট্রাফিক পুলিশকে সোজা হুমকি দিয়ে দিলেন। ‘‌জরিমানা করলেই আত্মহত্যা করব’‌, জানিয়ে দিলেন ট্রাফিক পুলিশকে। ঘটনাটি ঘটে শনিবার দিল্লির কাশ্মীরি গেটের কাছে। ওই মহিলার বিরুদ্ধে অভিযোগ, বাইক চালাতে চালাতে ফোনে কথা বলছিলেন তিনি। এমনকি হেলমেটও ঠিক করে পড়েননি। ট্রাফিক পুলিশের হাতে ধরা পড়তেই অতিরিক্ত জরিমানার হাত থেকে বাঁচতে কান্নাকাটি জুড়ে দেন তিনি। তাতে কোনও কাজ হচ্ছে না দেখে রীতিমতো ঝগড়া শুরু করেন। তাতে পরিস্থিতি হিতে বিপরীত হচ্ছে দেখে বাধ্য হয়ে আত্মহত্যার হুমকি দিয়ে বসেন ওই মহিলা। জানিয়ে দেন, ‘‌অতিরিক্ত জরিমানা দেওয়ার সামর্থ্য আমার নেই। চালান কাটলে আমায় আত্মহত্যা করতে হবে।’‌ পরিস্থিতি বেগতিক দেখে বাধ্য হয়ে কোনও জরিমানা না করেই ওই মহিলাতে ছেড়ে দেন ট্রাফিক পুলিশের কর্তারা। 
নতুন ট্রাফিক আইন যতোটা কঠোর সাধারণ মানুষের ক্ষেত্রে, ঠিক ততটাই শিথিল নেতা মন্ত্রীদের ক্ষেত্রে। শুক্রবারই উত্তরপ্রদেশের এক বিজেপি সাংসদ ট্রাফিক আইন ভাঙা সত্ত্বেও কোনও জরিমানা না করে তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

জনপ্রিয়

Back To Top