আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ জুলাই–তে ফের কমল জ্বালানির চাহিদা। সরকার যতই বলুক, অর্থনীতির রথের চাকা স্তব্ধই। অর্থনীতির ভাল–মন্দের সূচক এই জ্বালানি চাহিদা।‌ জুলাই মাসে দেশের জ্বালানির চাহিদা কমেছে এক কোটি ৬০ লক্ষ টন, যা গত বছরের এই সময়ে তুলনায় ১১.‌৭% কম এবং এই বছরের জুনের থেকে ৩.‌৫% কম। সে মাসেই অর্থনৈতিক ক্ষেত্র খুলে দেওয়ার পথে হেঁটেছিল কেন্দ্র। এপ্রিল ও মে, এই দু’‌মাসের কড়া লকডাউনের কল–কারখানাগুলো ধুলো ঝেড়ে উৎপাদন আরম্ভ করেছিল। রাস্তায় গাড়িঘোড়াও বেরতে শুরু করে। এক রাজ্য থেকে অন্য রাজ্যে পণ্য পরিবহন পুরোদমে চালু হয়। জুন মাসে পেট্রোল–ডিজেলের চাহিদায় ধরাও পড়ে সেই ছবি। অতিমারীর ধাক্কায় এপ্রিলে চাহিদা ৪৫% কমেছিল। দেশে যা পরিমাণ জ্বালানি খরচ হয়, তার দুই–পঞ্চমাংশ ভাগ দখল করে রেখেছে ডিজেল। এই জ্বালানির চাহিদা গত বছরের তুলনায় ১৯.‌২৫% কমেছে। গত জুন মাসের থেকে ৬৩ লক্ষ টন কম। পেট্রোলের চাহিদা পড়েছে ১০.‌৩%, গত বছরের তুলনায়। পাশাপাশি পেট্রো–পণ্য যেমন ন্যাপথা এবং বিটুমেনের চাহিদাও কমেছে বাজারে। একমাত্র চাহিদা বেড়েছে এলপিজি রান্নার গ্যাসের। 
 

জনপ্রিয়

Back To Top