আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ বাংলার পর এবার মহারাষ্ট্র। সপ্তাহখানেক আগে দেশের পূর্ব উপকূলে আছড়ে পড়েছিল ঘূর্ণিঝড় আমফান। তছনছ করে দিয়েছিল গোটা বাংলাকে। প্রভাব পড়েছিল পার্শ্ববর্তী ওডিশাতেও। এবার পালা দেশের পশ্চিম উপকূলের। আসছে ঘূর্ণিঝড় নিসর্গ। বর্তমানে আলিবাগ থেকে ৯৫ কিলোমিটার এবং মুম্বই থেকে ১৫০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান অতিশক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়ে পরিবর্তিত হওয়া নিসর্গের। এর আগে ১৮৮২ সালে তৎকালীন বোম্বাইয়ে আছড়ে পড়েছিল বোম্বাই সাইক্লোন। প্রাণ গিয়েছিল লক্ষাধিক মানুষের। হাওয়া অফিস বলছে, গত একঘণ্টায় সুপার সাইক্লোনে পরিণত হয়েছে ঘূর্ণিঝড়টি। ফলে মুম্বইয়ের আলিবাগ এলাকায় ল্যান্ডফল হওয়ার সময় হাওয়ার গতিবেগ থাকবে প্রতি ঘণ্টায় ১১০–১২০ কিলোমিটার। প্রাণহানি ও সম্পত্তির ক্ষয়ক্ষতি কমাতে ইতিমধ্যে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিতে শুরু করেছে প্রশাসন। জারি চূড়ান্ত সতর্কতা। মনে করা হচ্ছে, দুপুরের মধ্যেই আলিবাগ ও মু্ম্বইয় ঢুকে পড়বে নিসর্গ। ইতিমধ্যে মঙ্গলবার রাত থেকেই প্রবল ঝড়বৃষ্টি শুরু হয়েছে। বেলা যত গড়াচ্ছে বৃষ্টির দাপটও ততই বাড়ছে। এদিকে নেমে পড়েছেন জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীও। প্রশাসনিক সূত্রে খবর, মহারাষ্ট্রের আসন্ন বিপর্যয় মোকাবিলায় জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর ২০টি দল মোতায়েন করা হয়েছে। এর মধ্যে মুম্বইয়ে আটটি দল রয়েছে। সমুদ্র উপকূল বরাবর অতন্দ্র পাহারায় রয়েছেন তাঁরা। এছাড়া একাধিক উড়ান বাতিল হয়েছে। যাত্রীদের সমস্ত খোঁজখবর নিয়ে বিমানবন্দরে আসতে বলা হয়েছে। উপকূলবর্তী এলাকা থেকে কয়েক লক্ষ মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নিয়ে আসা হয়েছে।
 

 

 

 

 

জনপ্রিয়

Back To Top