আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ দেশে কোভিড সংক্রমণের হার ক্রমে বেড়েই চলেছে। কেন্দ্রীয় সাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে নতুন করে কোভিড আক্রান্ত হয়েছেন ১৬,৭৫২ জন। এই সময়ে দাঁড়িয়েই সারা দেশে আজ দ্বিতীয় পর্যায়ের করোনা টিকাকরণ কর্মসূচী শুরু হয়েছে। প্রবীণ নাগরিক অর্থাৎ ৬০ বছর বা তার বেশি বয়সীদের এবং ৪৫ বছর বয়সীদের যাঁদের কোমর্বিডিটি রয়েছে তাদের প্রথমে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে ভ্যাকসিন প্রয়োগের ক্ষেত্রে। সারা দেশে এই মুহূর্তে করোনা পজিটিভ কেস মোট ১ লাখ ৬৪ হাজর ৫১১। মারণ ভাইরাসের প্রকোপে মোট প্রাণ হারিয়েছেন ১ কোটি ৪৩ লাখ ১ হাজার ২৬৬ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় শুধু মারা গেছেন ১১৩ জন।  সাস্থ্যমন্ত্রকের ক্যাবিনেট সচিব সংশ্লিষ্ট রাজ্যগুলির সঙ্গে তেলঙ্গানা, মহারাষ্ট্র, ছত্তিশগড়, মধ্যপ্রদেশ, গুজরাট, পাঞ্জাব, জম্মু কাশ্মীর এবং পশ্চিমবঙ্গের সঙ্গে একটি উচ্চ পর্যায়ের পর্যালোচনা বৈঠকের পরই সিদ্ধান্ত নেয় কেন্দ্রীয় টিম পাঠাবে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, যে মহারাষ্ট্র, কেরল, পাঞ্জাব, কর্ণাটক, তামিলনাড়ু, গুজরাটে গত ২৪ ঘন্টায় কোভিড অ্যাকটিভ কেসের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। রবিবার স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যানে জানানো হয়েছে,দেশের কোভিড সংক্রমণে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে করোনার নতুন স্ট্রেনের ফলে। রবিবার স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যানে জানানো হয়েছে, নতুন স্ট্রেনের দাপট সামলে মানুষের সুস্থ হতে অতিরিক্ত সময় লাগছে। মহারাষ্ট্র ফের দৈনিক করোনা আক্রান্তের নিরিখে শীর্ষে রয়েছে। এই ৬ রাজ্যে বেড়ে চলা করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে কেন্দ্রীয় সাস্থ্যমন্ত্রকের তরফে উচ্চপর্যায়ের টিম পাঠাবে। ৬ রাজ্যের পাশাপাশি পশ্চিমবঙ্গ এবং জম্মু–কাশ্মীরেও যাবে এই টিম। সংশ্লিষ্ট রাজ্যগুলির সাস্থ্য দপ্তরের সঙ্গে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে রাজ্যগুলিতে কোভিড গ্রাফ কীভাবে কমানো যায় খতিয়ে দেখবে এবং নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করবে।

জনপ্রিয়

Back To Top