আজকাল ওয়েবডেস্ক: ‌ভারত বন্‌ধের দিনই প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের একাংশ ফের আন্দোলনে সামিল হলেন। সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের গেটে তালা ঝুলিয়ে হিন্দু হস্টেল পড়ুয়াদের থাকার জন্য ফিরিয়ে দেওয়ার দাবি জানান। গেটের বাইরেই দীর্ঘক্ষণ আটকে থাকেন উপাচার্য অনুরাধা লোহিয়া। মঙ্গলবার প্রেসিডেন্সিতে সমাবর্তনের আগে এ ধরনের ঘটনা চিন্তায় ফেলেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে।  
একদিকে শহরে বন্‌ধের প্রভাব অন্যযদিকে প্রেসিডেন্সির মধ্যেও অচলাবস্থার ছবি৷ হিন্দু হস্টেলের একাংশ সংস্কার হয়ে গেলেও সেখানে পড়ুয়াদের থাকতে দেওয়া হচ্ছে না৷ চার বছরের উপর বন্ধ হিন্দু হস্টেল৷ বাধ্য হয়ে আগষ্টের শুরু থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ভবনের তিন তলায় থাকছেন পড়ুয়ারা৷ মাঝে মধ্যে অসুস্থ হয়ে পড়ছেন তাঁরা৷ পড়ুয়াদের অভিযোগ, সব জেনেও উদাসীন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের৷ এই অভিযোগেই এদিন সকাল থেকে প্রেসিডেন্সির গেটে তালা ঝুলিয়ে আন্দোলনে সামিল হন বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের একাংশ৷ এর আগে বেশ কয়েকবার নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে হিন্দু হস্টেলের সংস্কারের কাজ শেষ করতে ব্যর্থ হ‌য়েছিল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ৷
গেটে তালা বন্ধ হওয়ায় সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ে এসে আটকে পড়েন উপাচার্য অনুরাধা লোহিয়া৷ ভিতরে ঢুকতে পারেননি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার সহ অন্যান্য অধ্যাপক, অধ্যাপিকা ও অশিক্ষক কর্মচারীরী৷ অবিলম্বে কর্তৃপক্ষ হিন্দু হস্টেল খুলে না দিলে এই অন্দোলন চলবে বলে জানায় পড়ুয়ারা৷ প্রেসিডেন্সির উপাচার্য অনুরাধা লোহিয়া বলেন, ‘আইন বিরুদ্ধ কাজ করছে আন্দোলনকারী পড়ুয়ারা৷ এইভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের গেট বন্ধ করতে পারে না তারা৷ তবে আমাদের পক্ষ থেকে পুলিস ডাকা হবে না। বিশ্ববিদ্যালয় চত্ত্বরে পুলিস ঢুকবে না।’ 

জনপ্রিয়

Back To Top