আজকালের প্রতিবেদন: মঙ্গলবার সকালে ১৫ আগস্টের কুচকাওয়াজের মহড়া চলার সময় ফের বেপরোয়া গাড়ি ঢুকে পড়ল। তবে গার্ড রেল থাকায় কোনও পুলিশকর্মী আহত হননি। ওই ঘটনায় ১৯ বছরের পড়ুয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পরে অবশ্য আদালত থেকে ৫০০ টাকার ব্যক্তিগত জামিন পায় ওই পড়ুয়া। কয়েক বছর আগে সাধারণতন্ত্র দিবসে কুচকাওয়াজের মহড়া চলার সময় একইভাবে একটি গাড়ি ঢুকে পড়েছিল। বায়ুসেনার কর্মী অভিমন্যু গৌড়া ওই ঘটনায় মারা যান। এদিনের ঘটনা সেই স্মৃতিকে উসকে দিল। পুলিশ জানিয়েছে, এদিন সকাল পৌনে ৭টা নাগাদ খিদিরপুর রোড ধরে একটি সেডান গাড়ি রেড রোডের দিকে আসে। ওই গাড়ি চালাচ্ছিল অরিত্র সান্যাল নামে বন্ডেল রোডের এক বাসিন্দা। এদিন সে সকালে গাড়ি চালিয়ে হাওয়া খেতে বেরিয়েছিল। তাকে যখন প্রথমে আটকানো হয়, তখন সে না থেমে গতি বাড়িয়ে দক্ষিণ থেকে উত্তর দিকে চলে যায়। কিন্তু গাড়িতে গতি থাকায় গার্ড রেলের সামনে এসেও নিয়ন্ত্রণ রাখতে পারেনি। গার্ড রেলে ধাক্কা দিয়ে দাঁড় করিয়ে রাখা প্রিজন ভ্যানের পেছনে গিয়ে ধাক্কা মারে। সে–সময়ে মহড়া চলছিল। পদস্থ পুলিশকর্তারাও ছিলেন।
পুলিশকর্মীরা দ্রুত এসে গাড়িটি ঘিরে ফেলেন। চালক অরিত্র অবশ্য আহত হয়নি। গাড়ি বাজেয়াপ্ত করে ময়দান থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। গাড়িটি তার মা সুলগ্না সান্যালের নামে রেজিস্ট্রি করা আছে। ২০১৮ সালে গাড়িটি কেনা হয়েছে। কয়েক মাস আগেই অরিত্র ড্রাইভিং লাইসেন্স পেয়েছে। সে ভুবনেশ্বরে একটি বেসরকারি কলেজে পড়াশোনা করে। গাড়িটির বাঁদিকের হেডলাইট ভেঙে যায়। পুলিশ ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৭৯ এবং ৪২৭ ধারায় মামলা করে। পরে জামিন পায় অরিত্র।‌

জনপ্রিয়

Back To Top