আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে দেড় বছর আগেই একাধিক অভিযোগ এনেছিলেন। যার নিষ্পত্তি আজও হয়নি। তার মধ্যেই শিরোনামে টিম ইন্ডিয়ার পেসার মহম্মদ সামির স্ত্রী হাসিন জাহান। এবার হাসিনের অভিযোগ, তাঁর ব্যক্তিগত ছবি এবং ফোন নম্বর ফাঁস করে দেওয়ার নাম করে লাগাতার হুমকি ফোন করেছে প্রাক্তন পরিচারিকা। অবশ্য হাসিন জাহানের অভিযোগের ভিত্তিতে যাদবপুর থানার পুলিশ এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে। যে নম্বর থেকে ওই পরিচারিকা ফোন করত, তা ওই ব্যক্তির বলে প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছে পুলিশ।
হাসিন জাহানের অভিযোগ, সেপ্টেম্বর মাস থেকে তাঁকে ফোনে লাগাতার হুমকি দিচ্ছিল বাড়ির প্রাক্তন পরিচারিকা শীলা সরকার। তাঁর কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করা হতো। শীলার ছেলে হিসেবে পরিচয় দিয়ে এক পুরুষকণ্ঠও হুমকি দিত। হাসিনকে হুঁশিয়ারি দেওয়া হতো অশ্রাব্য ভাষায়। অভিযোগ, তাঁকে বলা হতো যে দাবিমতো টাকা না দিলে হাসিনের ব্যক্তিগত ফোন নম্বর এবং ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দেওয়া হবে। বেআইনি কাজেও তাঁর নাম, ছবি ব্যবহার করা হবে।
শেষমেশ পুলিশের দ্বারস্থ হন হাসিন জাহান। যে দুটি ফোন নম্বর থেকে তাঁর কাছে ফোন আসত, যাদবপুর থানায় সেসব পেশ করে চলতি মাসের ২২ তারিখ লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় দু’জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। এরপর তদন্তে নেমে পুলিশ মঙ্গলবার ক্যানিং স্টেশন রোড থেকে দেবরাজ সরকার নামে বছর পঁচিশের এক যুবককে গ্রেপ্তার করে।

জনপ্রিয়

Back To Top