আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ শহরে ফের গণধর্ষণের শিকার এক তরুণী। খাবারের লোভ দেখিয়ে ফুটপাতবাসী তরুণীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠল তিন ফেরিওয়ালার বিরুদ্ধে। অভিযোগ দায়েরের ১২ ঘণ্টার মধ্যেই অবশ্য দুই অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিস। ধৃতদের নাম চন্দন সাহা ওরফে পিন্টু ও সুনীল যাদব। শুক্রবার রাতেই তাদের গ্রেপ্তার করে উত্তর বন্দর থানার পুলিস। ধৃতদের জেরা করে পলাতক তৃতীয় অভিযুক্তের খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়েছে। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে স্ট্র্যান্ড রোডে। 
শুক্রবার সন্ধ্যায় স্ট্র্যান্ড রোডের ফুটপাতে বসে অঝোরে কাঁদছিলেন এক তরুণী। তাঁকে খানিকটা অপ্রকৃতিস্থ দেখাচ্ছিল। শহরের ওই ব্যস্ত রাস্তার ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ করছিলেন এক সার্জেন্ট। তিনিই তরুণীকে কাঁদতে দেখে এগিয়ে আসেন। কথাবার্তায় জানতে পারেন, সারা শরীরে অসহ্য যন্ত্রণা হচ্ছে তাঁর। তরুণীকে যন্ত্রণায় কুঁকড়ে যেতে দেখে তাঁকে তড়িঘড়ি নিকটবর্তী হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। চিকিৎসকরা পরীক্ষা করে জানান গণধর্ষণের শিকার হয়েছে ওই তরুণী। এরপরেই চাঞ্চল্য ছড়ায়। উত্তর বন্দর থানায় খবর দেওয়া হয়। পুলিস এসে নির্যাতিতা তরুণীকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে। জেরায় নির্যাতিতা জানান, শুক্রবার দুপুরে তিনি ফুটপাতে বসেছিলেন। পরিচিত তিন যুবক তাঁকে খেতে নিয়ে যাওয়ার লোভ দেখায় বলে অভিযোগ। এরপরই ফেয়ারলি প্লেস এলাকার এক নির্জন জায়গায় ওই তরুণীর উপর নারকীয় অত্যাচার চালায় তিন অভিযুক্ত। তারপর সেখানেই ওই তরুণীকে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। জ্ঞান ফেরার পর নির্যাতিতা নিজেই স্ট্র্যান্ড রোডের ফুটপাতে ফিরে আসেন। এরপরই উত্তর বন্দর থানায় গণধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করা হয়। তদন্তে নেমে পুলিস দুই অভিযুক্তকে শুক্রবার রাতেই গ্রেপ্তার করে। পলাতক তৃতীয় অভিযুক্তের খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়েছে।

জনপ্রিয়

Back To Top