আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ গোটা বিশ্বে যেদিন করোনা সংক্রমণের সংখ্যা ২ কোটি ছাড়াল, সেদিনই সুখবর দিলেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুটিন। তিনি দাবি করেছেন, রাশিয়ায় ভ্যাকসিন তৈরির কাজ সম্পূর্ণ। বিশ্বে প্রথম কোভিড ভ্যাকসিন রাশিয়াই আনল বলে দাবি প্রেসিডেন্ট পুটিনের। গামালিয়া ইনস্টিটিউটে ভ্যাকসিন তৈরির কাজ শেষ হওয়ার পর দু’‌মাস মানব শরীরে পরীক্ষার পর তা অনুমোদন পেয়েছে। এমনকি পুটিনের মেয়ের শরীরেও এই ভ্যাকসিন প্রয়োগ করা হয়েছে বলে জানা গেছে। মঙ্গলবার ভিডিও কনফারেন্স করে পুটিন জানিয়েছেন, ‘‌ভ্যাকসিনটি কার্যকর হবে বলে মনে করি। হার্ড ইমিউনিটি গড়ে তুলতে সাহায্য করবে। সমস্ত পরীক্ষা সম্পূর্ণ। অনুমোদন পেয়ে গেছে ভ্যাকসিনটি।’‌ পুটিনের আশা খুব শীঘ্রই ভ্যাকসিন উৎপাদনের কাজ শুরু হয়ে যাবে। ইতিমধ্যেই কয়েক কোটি টিকা বানিয়ে দেশের মানুষের কাছে পৌঁছে দিতে তৎপর হয়েছে মস্কো। তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা–র ছাড়পত্র ছাড়া এটি অন্য দেশে ব্যবহার করা যাবে না। 
কয়েকদিন আগেই প্রতিষেধক বাজারে আসার দিন আরও এগিয়ে আনার ঘোষণা করেছিল রুশ প্রশাসন। নির্ধারিত সময়ের একদিন আগেই অর্থাৎ ১১ আগস্টের মধ্যেই সেই কাজ করে ফেলল মস্কো। রাশিয়ার চিকিৎসা বিজ্ঞানীদের দাবি, এই টিকা প্রয়োগে তাঁদের শরীরে তৈরি হওয়া অ্যান্টিবডি করোনার সঙ্গে যুঝতে প্রস্তুত। দেশের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী জানিয়েছেন, সেপ্টেম্বরে ভ্যাকসিন উৎপাদনের গতি আরও বাড়ানো হবে। 
এই মুহূর্তে বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২,০১,১১,১৮৬। ২১০ এরও বেশি দেশ ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। সারা বিশ্বে মৃতের সংখ্যা এইমুহূর্তে ৭,৩২,০০০। সংক্রমণের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে আমেরিকা। দুইয়ে ব্রাজিল। তিনে ভারত।
ভারতে আবার গত একদিনে আক্রান্তের সংখ্যা ৫৩,৬০১। ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৮৭১ জন। ভারতে সংক্রমণের সংখ্যা এখন ২২,৬৮,৬৭৬। তার মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৫,৮৩,৪৯০। এই পরিস্থিতিতে আজই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ভার্চুয়াল বৈঠক করেছেন ১০ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে। যার মধ্যে অন্ধ্রপ্রদেশ, কর্নাটক, তামিলনাড়ু, পশ্চিমবঙ্গ, মহারাষ্ট্র, পাঞ্জাব, বিহার, গুজরাট, তেলঙ্গানা, উত্তরপ্রদেশ রয়েছে। বৈঠকে মোদি বলেছেন, করোনা মোকাবিলায় সঠিক পথেই এগোচ্ছে রাজ্যগুলি। 
এরই মধ্যে এল সুখবর। রাশিয়ার তৈরি ভ্যাকসিন অনুমোদন পেয়ে গেছে। এবার বিপুল হারে তা উৎপাদন শুরু হবে বলে দাবি প্রেসিডেন্ট পুটিনের। 
 

জনপ্রিয়

Back To Top