আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ স্বাস্থ্যবিমা পেতে ভুয়ো বিবৃতি দিয়ে জালিয়াতির ঘটনায় সাজা হল ভারতীয় বংশোদ্ভূত মহিলা চিকিৎসকের। ঘটনাটি ক্যালিফোর্নিয়ার সারাটোগা শহরে। বিলাসিনী গণেশ নামে ৪৭ বছরের ওই চিকিৎসক এবং তাঁর স্বামী, ৫৬ বছরের গ্রেগরি বেলশের, দু’‌জনেই ক্যালিফোর্নিয়ার বাসিন্দা। গত ২৮ আগস্ট, বিলাসিনীকে ৬৩ মাসের কারাদণ্ডের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। আগামী ১ নভেম্বর থেকে শুরু হবে বিলাসিনীর কারাদণ্ড। রায় শোনানোর সময় বিচারক লুসি কোহ্‌ বলেন, আইনি কথা কিছু বুঝতে পারছেন না বলে আইনজীবী এবং পুলিসকে মিথ্যা কথা বলেছিলেন বিলাসিনী। তাঁকে যে টাকা দেওয়া হয়েছিল সেই পরিমাণ নিয়েও ভুল তথ্য দিয়েছিলেন তিনি। এজন্য ছাড়া পাওয়ার পর আরও তিন বছর তাঁকে পুলিসের নজরবন্দি হয়ে থাকতে হবে। এছাড়া বিমা সংস্থাকে ৩,৪৪০০০ মার্কিন ডলার ক্ষতিপূরণ দিতে হবে তাঁকে। বিলাসিনীর স্বামী গ্রেগরিকে এবছর এপ্রিলেই এক বছরের কারাদণ্ড এবং তিন বছর নজরবন্দি করার রায় দিয়েছিল আদালত।
মার্কিন অ্যাটর্নি অ্যালেক্স সি বলেছেন, শুনানির সময় বিলাসিনীর বিরুদ্ধে দাখিল করা তথ্যপ্রমাণে দেখা গিয়েছে, স্বাস্থ্যবিমার টাকা পাওয়ার জন্য বহু মিথ্যা বিবৃতি দিয়েছিলেন তিনি। এমন রোগীদের জন্য তিনি বিমার টাকা দাবি করেছিলেন, যাঁদের তিনি দীর্ঘদিন কোনও চিকিৎসা করেননি। এমনকি বিলাসিনী ওই মিথ্যা বিলে কয়েকজন রোগীর নাম উল্লেখ করেছিলেন, যাঁরা এস মাসে প্রায় ১২–১৫বার তাঁর কাছে গিয়েছেন চিকিৎসার জন্য। গত বছর জুলাইয়ে বিলাসিনী এবং গ্রেগরির বিরুদ্ধে বিমানর টাকা আত্মসাতের অভিযোগ দায়ের হয়েছিল। আট সপ্তাহ ধরে শুনানি চলার পর গত বছর ডিসেম্বরে তাঁদের দোষী সাব্যস্ত করে ক্যালিফোর্নিয়ার আদালত।    ‌

জনপ্রিয়

Back To Top