আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ করোনা ভাইরাসের হাত থেকে এখনই নিস্তার নেই। এখনও অনেক অপেক্ষা করতে হবে। এই বিপদ এত সহজে কাটার নয়। হয়তো কোনওদিনই আমাদের ছেড়ে যাবে না করোনা। কোভিড–১৯ নিয়ে নতুন আশঙ্কার কথা শোনাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
বুধবার হু–র জরুরি পরিস্থিতি বিভাগের প্রধান মাইকেল রায়ান বিশ্ববাসীকে সতর্ক করে বলছেন, করোনা ভাইরাসও হয়তো এইচআইভি–র মতো। যা কিনা কোনওদিন আমাদের ছেড়ে যাবে না। রায়ানের কথায়, ‘‌মানুষের শরীরে সংক্রমণ ছড়ানো এই ধরনের ভাইরাস আমরা প্রথমবার দেখছি। সুতরাং এটা বলাটা খুব কঠিন যে ভাইরাসটির বিরুদ্ধে আমরা কতদিনে যুদ্ধজয় করতে পারব।’‌ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এই শীর্ষ কর্তা বলছেন, ‘‌এই ভাইরাসটাও হয়তো আর পাঁচটা মহামারির মতো আমাদের সমাজে থেকে যেতে পারে। হতে পারে এটা হয়তো কখনওই বিদায় নেবে না। এইচআইভি কি গেছে? যায়নি তো। তবু একে সঙ্গে নিয়েই আমরা বাঁচতে শিখে গেছি।’‌ 
মাইকেল রায়ান এদিন লকডাউন তোলা নিয়েও বিশ্ববাসীকে সতর্ক করেছেন। তিনি বলছেন, ‘‌অনেক দেশ ভাবছে কোনও একটা জাদু কাজ করবে। আর লকডাউন তোলার পর সব ঠিকঠাক চলবে। দুটো ভাবনা ভিত্তিহীন এবং বিপজ্জনক। আমাদের এখনও অনেক রাস্তা যেতে হবে। সবকিছু স্বাভাবিক হতে আরও অনেক সময় লাগবে।’‌ হু প্রধান টেড্রোস আধানম ঘেব্রেইসুস এদিন আরও একবার লকডাউন তোলা নিয়ে গোটা বিশ্বকে সতর্ক করেছেন। তিনি বলছেন, ‘‌অনেক দেশই চাইছে অন্যভাবে ভাইরাসের মোকাবিলা করতে। কিন্তু আমরা পরামর্শ দেব সর্বোচ্চ স্তরের সাবধানতা অবলম্বন করার।’‌ 
২০১৯ সালের ডিসেম্বর মাস। করোনা প্রথম থাবা বসায় চীনের ইউহান শহরে। সাড়ে পাঁচ মাস সময় পেরিয়ে গিয়েছে। অন্তত ৩ লক্ষ মানুষের প্রাণ নিয়েছে করোনা। আক্রান্ত ৪০ লক্ষের বেশি মানুষ। রায়ানের কথায়, ‘‌করোনা সম্পর্কে আমরা কেউ কিছুই জানতাম না। কাজেই এর প্রতিকারও হঠাৎ খুঁজে পাওয়া সম্ভব নয়।’‌

জনপ্রিয়

Back To Top