সুচেতনা সরকার, লন্ডন- রোজ সংখ্যাটা বাড়ছে লাফিয়ে লাফিয়ে। ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন খুব কড়া পদক্ষেপ নিলেন। বাড়ি থেকে একেবারে বেরোতে মানা। ইতালির সমান হারেই প্রায় বাড়ছে ব্রিটেনের সংক্রমণ, শুধু দু’‌সপ্তাহ পিছিয়ে। তারপর প্রিন্স চার্লসও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। রানি এলিজাবেথ এবং প্রিন্স ফিলিপ এখনও ঠিক আছেন। নব্বই–‌ঊর্ধ্ব মানুষ দুটিকে নিয়ে ইংরেজদের আবেগ অজানা নয়। বিশ্বযুদ্ধের সময়েও লন্ডন ছেড়ে, প্রজাদের ছেড়ে কখনও কোথাও যাননি রানিমা, এবারেও প্রজাদের সঙ্গে থাকার সিদ্ধান্তই তিনি নিয়েছেন। 
লন্ডনে হাই স্কুলে পড়াচ্ছি গত কুড়ি বছর ধরে। অনির্দিষ্টকালের জন্য স্কুল বন্ধ হয়ে যাওয়া, জিসিএসই, এ লেভেল পরীক্ষা বন্ধ হয়ে যাওয়া কখনও দেখিনি। আরেকটু আগেই সিদ্ধান্তটা নেওয়া উচিত ছিল। ইতালীয় এক ছাত্র তিন সপ্তাহ আগে ফিরেছিল জ্বর নিয়ে, তাকে বাড়িতে থাকার জন্য স্কুল থেকে বলা হয়েছিল, শোনেনি সে। তার থেকে আমার সহকর্মীর করোনা সংক্রমণ হয়। গত দশদিন ধরে সে বিছানায় শয্যাশায়ী, জ্বর, পেশির দুর্বলতা, শ্বাসকষ্ট তার ওপর সেলফ আইসোলেশন। হাসপাতালগুলোর অবস্থা সঙ্গিন। ডাক্তার–‌নার্সরা ৮ ঘণ্টা টানা ডিউটি করে তারপর ফিরে দেখছেন দোকানে ফ্রেশ ফলমূল, শাকসবজি কিছুই নেই, দুধ নেই, ডিম বাড়ন্ত। ভারতীয় গুজরাটি মুদি দোকানগুলো চারগুণ দাম হাঁকাচ্ছে দেখে সরকার থেকে শুধু সুপার মার্কেটগুলো খুলে রাখার সিদ্ধান্ত দিয়েছে। করোনা দেখিয়ে দিয়েছে কত কমে আমরা বাঁচতে পারি, শুধু চাল, ডাল, আটা, ডিম, আলু— এটুকু হলেই চলে। স্কুলের ছেলেপুলেদের জন্য অনলাইন কাজ দেওয়া হচ্ছে, সবচেয়ে দুষ্টু যে ছেলেটা, সে–‌ও সব কাজ করে ঠিকঠাক জমা দিচ্ছে। আমার ছেলে ডাক্তারি পড়ছে, সেকেন্ড ইয়ার, ইউনিভার্সিটিগুলো সপ্তাহ দুয়েক আগেই ছুটি দিয়ে দিয়েছে। ফাইনাল পরীক্ষাও প্রায় বাতিল বলা যায়। বিদেশ থেকে আসা ছাত্রছাত্রীদের খুব অসুবিধে, তারা থাকবে কোথায়? যাবেই বা কোথায়? বিমান চলছে না। হঠাৎ করে ৫০ বছর পিছনে হাঁটা শুরু! যাঁরা সেল্‌ফ এমপ্লয়েড, অথবা রোজের কাজ করেন, কীভাবে তাঁদের চলবে বাকি দিনগুলো, জানা নেই। 
আপাতত দরকার টেস্টিং। লন্ডন আন্ডারগ্রাউন্ডে যাঁদের এখনও গাদাগাদি করে কাজে যেতেই হচ্ছে, তাঁদের কী হবে? তাঁরা যে মূল পরিষেবার কর্মী!‌ অন্তত তাঁদের জন্যে টেস্টিং জরুরি। বরিস জনসন অ্যান্টিবডি টেস্টিংয়ের ওপর গুরুত্ত্ব দিচ্ছেন বেশি করে। যাঁদের ইমিউনিটি তৈরি হয়ে গেছে শরীরে, তাঁরাই ভরসা। ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top