আজকাল ওয়েবডেস্ক: ‌ভুটানের ভারত–চীন সীমান্ত ডোকা লায় ফের উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে। দু’‌বছর আগেই এই ডোকা লায় চীনের সড়ক নির্মাণ নিয়ে দুই দেশের মধ্যে ঠান্ডা লড়াই শুরু হয়। যা বহুদিন পর ভারত–চীনের মধ্যে কূটনৈতিক আলোচনার মাধ্যমে সমাধান হয়েছিল। কিন্তু এক রিপোর্টে জানা গিয়েছে, দু’‌বছর পর আবারও মাথা চাড়া দিয়েছে ডোকা লা সমস্যা। ভুটানের পশ্চিমাংশের মালভূমি অঞ্চল ডোকা লাতে আবারও চীন সড়ক নির্মাণের কাজ শুরু করেছে। চীনা সেনাবাহিনীকেও সেখানে টহল দিতে দেখা গিয়েছে।
স্যাটেলাইট ছবিতে পুরো দৃশ্যটি দেখতে পাওয়া গিয়েছে। যা নিয়ে ফের চিন্তা দেখা দিয়েছে ভারতের কপালে। ওই স্যাটেলাইট ছবিতে রাস্তার পাশাপাশি হেলিপ্যাডও তৈরি করছে চীন। ২০১৭ সালে ডোকা লা সংলগ্ন ট্রাইজংশন সীমান্তে রাস্তা নির্মাণ নিয়ে উত্তেজনার সৃষ্টি হয় ভারতীয় সেনা বাহিনী ও চীনের পিপল’‌স লিবারেশন আর্মির মধ্যে। দীর্ঘ ৭২দিন ধরে ডোকালার ট্রাইজংশনে চীনা সেনারা ঘাঁটি গেড়েছিলেন। ভারতীয় সেনা এরপর ডোকা লায় সড়কপথ নির্মাণের কাজ বন্ধ করে দিলে অশান্তি চরমে পৌঁছায়। জানা গিয়েছে, শিলিগুড়ি করিডরে ঢোকার কৌশল হিসাবে চীনা সেনারা এই ডোকা লায় রাস্তা নির্মাণ করছিল। যাতে সহজে তারা ঝামফেরি রিজ হয়ে শিলিগুড়িতে ঢুকতে সফল হয়। ডোকা লায় ভারত–চীনের এই উত্তেজনা সেই সময় গোটা বিশ্বের নজর কেড়েছিল। দুই সেনা বাহিনী মিসাইল–ট্যাঙ্কারের মত ভারী অস্ত্র নিয়ে যুদ্ধের জন্য প্রায় প্রস্তুত হয়ে গিয়েছিল। তবে ৭২ দিন পর বেজিং ও দিল্লি অবশেষে সীমান্ত থেকে বাহিনী উঠিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। 
তবে দ্য প্রিন্টের স্যাটেলাইট ইমেজে দেখা গিয়েছে, ডোকা লায় চীন ফের রাস্তা তৈরি করছে এবং সেনাদের কড়া টহলদারি চলছে। ইয়াটং ও টিসোনা সেক্টরে পিপল’‌স লিবারেশন আর্মিকে দেখা গিয়েছে। ওই সেক্টরে হেলিপ্যাড তৈরির কাজও করা হচ্ছে বলে দেখা গিয়েছে স্যাটেলাইট ছবিতে। তবে নতুন রাস্তার গতিপথ একটু বদল করা হয়েছে। ডোকা লা মালভূমির নীচ থেকে বয়ে চলা তোর্সা নদীর পশ্চিমাঞ্চল থেকে এই রাস্তা তৈরি হচ্ছে। লেফটেন্যান্ট জেনারেল এইচ এস পানাগ (‌আর)‌ এই ছবি টুইট করেছেন তাঁর টুইটারে।     

 

 


 

জনপ্রিয়

Back To Top