আজকাল ওয়েবডেস্ক: সিডনিগামী কাতার এয়ারওয়েজের ১০টি উড়ানের মহিলা যাত্রীদের শারীরিক পরীক্ষাকে ভয়াবহ বলে বুধবার অভিহিত করল অস্ট্রেলিয়া। গত দুতারিখ দোহা থেকে সিডনিগামী কাতার এয়ারওয়েজের ১০টি বিমানের মহিলা যাত্রীদের গোপনাঙ্গতেও পরীক্ষা করা হয়েছিল। তারপর থেকেই ওই ঘটনায় জেরে বিতর্কের মুখে পড়েছে কাতার সরকার। ওই মহিলা যাত্রীদের অসুবিধার জন্য ক্ষমাও চেয়েছে তারা। কাতার সরকার বুধবার সাফাইয়ে বেছে, দোহা বিমানবন্দরে একটি সদ্যোজাতকে প্লাস্টিকে মুড়িয়ে ডাস্টবিনে ফেলে দেওয়া হয়েছিল যাতে যে মারা যায়। সেকারণেই মহিলা যাত্রীদের যৌনাঙ্গে পরীক্ষা করা হয়েছিল। কিন্তু কাতারকে আরও চাপ দিতে অস্ট্রেলিয়ার বিদেশমন্ত্রী এদিন সেনেট কমিটিতে বলেন, সিডনিগামী উড়ানের মোট ১৮জন মহিলার উপর তল্লাশি চালানো হয়, যাঁদের মধ্যে ১৩জন অস্ট্রেলীয় নাগরিক। ওই সিডনিগামী একটি উড়ানের এক ফরাসি মহিলাই ওই কাজ করেছিলেন বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা গিয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসনও বুধবার বলেন, এক কন্যাসন্তানের বাবা হওয়ার কারণে অস্ট্রলিয়া হোক বা অন্য কোথাও এধরনের ঘটনার তীব্র নিন্দা করেন তিনি। 

জনপ্রিয়

Back To Top