আজকাল ওয়েবডেস্ক: মাত্র ৫৪ বছর বয়সেই নিজের হাতে গড়া কোম্পানি থেকে অবসরের সিদ্ধান্ত। আগামী চীনা শিক্ষক দিবসে বিখ্যাত অনলাইন ই–কমার্স কোম্পানি আলিবাবা থেকে অবসর নিচ্ছেন কোম্পানির এক্সিকিউটিভ চেয়ারম্যান তথা সহ প্রতিষ্ঠাতা জ্যাক মা। জ্যাক জানালেন, সোমবার তাঁর ৫৪ বছরের জন্মদিন। ওই দিনই অবসর নেবেন। তারপর মানবপ্রেম বা জনহিতৈষণা নিয়ে পড়াশোনা করবেন। ইংরেজির শিক্ষক হিসেবে নিজের জীবন শুরু করা জ্যাক এর আগেও বেশ কয়েকবার মজার ছলে বলেছিলেন, তিনি খাঁটি প্রযুক্তিবিদ নন। কখনও হতেও পারবেন না। জ্যাকের অবসর নিয়ে এখনও আলিবাবা কোনও প্রতিক্রিয়া দেয়নি। তাঁর পরে পরবর্তী কে এক্সিকিউটিভ চেয়ারম্যান হবেন সেবিষয়েও কিছু জানায়নি। তবে জ্যাকের অবসরের ঘোষণা শোনার পরই শনিবার সকালে আলিবাবার শেয়ার দু’‌শতাংশ পড়ে যায়। 
১৯৯৯ সালে যৌথভাবে চীনের অনলাইন ই–কমার্স কোম্পানি আলিবাবা শুরু করেছিলেন জ্যাক মা। ২০১৩ সালে কোম্পানির সিইও হন তিনি। তাঁর উপদেশ এবং নেতৃত্বেই আলিবাবার ব্যবসা তুমুল সাফল্য পায়। ই–কমার্স ছাড়া অনলাইন পেমেন্ট, ব্যাঙ্কিং পরিষেবা, বিনোদনের মতো বহুবিধ কাজে ছড়িয়ে পড়ে আলিবাবার নাম। গত বছর পরায় ৪০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার রাজস্ব আদায় করেছিল আলিবাবা। বর্তমান ষাণ্মাষিকেই ই–কমার্সের রাজস্ব ১০ মিলিয়ন ডলার ছাড়িয়ে গিয়েছে। কোম্পানির বার্ষিক গ্রাহক সংখ্যা কমপক্ষে ৫২৪ মিলিয়ন। ২০১৩ সালে কোম্পানির চেয়ারম্যান হন জ্যাক। ওই বছরই নিউ ইয়র্ক স্টক এক্সচেঞ্জে প্রথম পা রাখে আলিবাবা। উদ্বোধনী ঘণ্টা বাজিয়েছিলেন জ্যাক। ওই বছরই ‘‌জ্যাক মা ফাউন্ডেশন’‌ খুলে মানবকল্যাণ নিয়ে পড়াশোনার উপর জোর দেন। তবে কোম্পানির পদে থেকেই ওই কাজ এতদিন করছিলেন তিনি। এবার সম্পূর্ণরূপে এই পড়াশোনাই করবেন বলে জানালেন চীনের সব থেকে ধনী মানুষ জ্যাক মা। 

জনপ্রিয়

Back To Top