আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ রাত পোহালেই আলোর উৎসবে মেতে উঠবে গোটা রাজ্য সহ দেশ। খাওয়া–দাওয়া, পরিবার–বন্ধুদের সঙ্গে দেদার আড্ডায় মেতে উঠবে উৎসবপ্রিয় বাঙালি। দিওয়ালি উপলক্ষ্যে সেজে উঠেছে বাজি বাজার। নিম্নচাপ সরিয়ে রোদ উঠতেই বাজি বাজারে ক্রেতাদের ঢল নেমেছে। দিওয়ালি উৎসবে মেতে উঠতে চলেছে আমজনতা। যদিও সাবধানবানী শুনিয়েছেন আনন্দপুর ফর্টিস হাসপাতালের পালমোনোলজি বিভাগের ডিরেক্টর ডা.‌ রাজা ধর। তিনি বলেছেন, ‘‌বাজি উৎসবের জন্য পরিবেশ দূষিত হয় মারাত্মকভাবে। যার ফলে প্রতিবছর দিওয়ালির সময় শ্বাসকষ্টের সমস্যা দেখা দেয় প্রচুর মানুষের। ফুসফুসের সংক্রমণ নিয়ে অনেকে ভর্তি হন হাসপাতালে। দিওয়ালির সময় সংখ্যাটা মারাত্মকভাবে বেড়ে যায়।’‌ হাসপাতালের পালমোনোলজি বিভাগের চিকিৎসক অংশুমান মুখার্জি বলেছেন, ‘‌দিল্লি দেশের মধ্যে সবচেয়ে দূষিত শহর। কিন্তু গতবছর দিওয়ালির সময় কলকাতার দূষণ দিল্লিকেও ছাপিয়ে গিয়েছিল। গাড়ির ধোঁয়ার সঙ্গে যোগ হয়েছিল বাজি দূষণ। এই দূষণে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয় শিশু থেকে বয়স্করা। তাই দিওয়ালি পালন করুন। কিন্তু দূষণ যাতে বেড়ে না যায়, সেদিকে নজর রাখুন।’‌   ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top