আজকালের প্রতিবেদন: বড়বাজারের পোস্তা, ফলপট্টি–‌সহ কলকাতার শ্রমিক কোয়ার্টারগুলিতে এবার হাইড্রোক্সিন ক্লোরোকুইন ওষুধ দেবে কলকাতা পুরসভা। বৃহস্পতি ও শুক্রবার এই দু’‌দিন ওষুধ দেওয়া হবে। বুধবার একথা জানিয়েছেন পুর প্রশাসকমণ্ডলীর প্রধান প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম। তিনি জানান, ডাক্তারদের দিয়ে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করেই ওযুধ বিতরণ করা হবে। বড়বাজার এলাকায় প্রচুর শ্রমিক আছেন। তাঁদের সুরক্ষার জন্যই এই উদ্যোগ। বেহালার সিরিটি বাজারে ভিড় নিয়ে উদ্বিগ্ন পুর প্রশাসক। কড়া হাতে বাজারের ভিড় নিয়ন্ত্রণ করার নির্দেশ দেন ফিরহাদ হাকিম। এদিন পুরসভায় রিভিউ বৈঠক বসেন পুর প্রশাসক। পরে তিনি জানিয়েছেন, কলকাতা পুরসভা চারটি কোয়ারেন্টিন সেন্টার তৈরি করেছে। যার মধ্যে রাজারহাট ফরেনসিক বিল্ডিং এবং বালতিকুরিতে। ই এম বাইপাসে একটির কাজ চলছে। আরও একটি বন্ধ হাসপাতালকে কোয়ারেন্টিন সেন্টার তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে। 
বৃহস্পতিবার বেলা দুটোয় রাজারহাটে তৈরি নতুন কোয়ারেন্টিন সেন্টার পরিদর্শনে যাবেন ফিরহাদ। একই সঙ্গে সিদ্ধান্ত হয়েছে, কোনও এলাকায় করোনা পজিটিভ হলে এবার এলাকা ধরে নয়, নির্দিষ্ট সেই বাড়ি বা সেই প্যাসেজ কন্টেনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করা হবে। যদি একটা ‘‌স্ট্যান্ড অ্যালোন’‌ বাড়িকে কন্টেনমেন্ট ঘোষণা করা হয়, তাহলে সেই বাড়িটি স্যানিটাইজড করা হবে। বাড়ির ভিতরে কাউকে ঢুকতে দেওয়া হবে না। বাড়ির লোকেদেরও বেরোতে দেওয়া হবে না। একইভাবে কোনও গলি বা পাড়ার ক্ষেত্রেও কাজ করা হবে।‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top