আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ ‌ভোডাফোন, আইডিয়ার এবং ভারতী-এয়ারটেলের পর মাসুল বাড়ানোর পথে হাঁটছে রিলায়েন্স জিও। প্রিপেড পরিষেবায় ভয়েস কল ও ইন্টারনেটের মাসুল ৪০ শতাংশ বাড়ানোর কথা ঘোষণা করল মোবাইল পরিষেবা প্রদানকারী সংস্থা, রিলায়েন্স। রবিবার সংস্থার পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, ৬ ডিসেম্বর থেকেই নতুন এই হার কার্যকরী হবে। অর্থাৎ ৫ ডিসেম্বর মধ্যরাতের পর থেকেই কল ও ইন্টারনেট পরিষেবার জন্য বেশি টাকা গুণতে হবে গ্রাহকদের। 
রিলায়েন্স জিও ইতিমধ্যেই মাসুল বাড়িয়েছে। ট্যারিফ প্ল্যান এবং অন্য নেটওয়ার্কে কল রেট বাড়িয়েছে। এদিকে রিলায়েন্সের পাশাপাশি ভোডাফোন, আইডিয়া এবং এয়ারটেলও একই পথে হাঁটতে চাইছে। ফলত তিন পরিষেবা সংস্থার গ্রাহকদেরই মোবাইলের খরচ বাড়ছে। স্বাভাবিক ভাবেই এ নিয়ে গ্রাহকদের মধ্যে অসন্তোষ বাড়ছে বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে রিলায়েন্স জিও সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, ‘‌মাশুল বাড়ানো হচ্ছে ঠিকই। কিন্তু পাশাপাশি আগের চেয়ে ৩০০ শতাংশ ভাল পরিষেবা পাবেন গ্রাহকরা। তবে মাশুল কতটা বাড়ানো হবে, সেবিষয়ে কেন্দ্রীয় টেলিকম নিয়ামক সংস্থার সঙ্গে আলোচনা করেই ঠিক হবে।’‌ 
সম্প্রতিই রিলায়েন্স মাশুল বাড়িয়েছে। তারপরও গ্রাহকদের একটি অংশের দাবি, মাশুল বাড়ানোর আগে পরিষেবার মান উন্নত করা দরকার। কারণ তিনটি মোবাইল পরিষেবা সংস্থার ক্ষেত্রেই কল ড্রপ, কথা শুনতে না পাওয়া, ক্রস কানেকশনের মতো বহু সমস্যা রয়েছে। আনলিমিটেড কলের ক্ষেত্রে কল ড্রপের খুব একটা প্রভাব থাকত না। কারণ যত কলই হোক, খরচ একই থাকত। কিন্তু যখনই কল পিছু টাকা কাটা হবে, তখন এই সমস্যা থাকলে তাতে গ্রাহকদের অসন্তোষ আরও বাড়বে।

জনপ্রিয়

Back To Top