আজকালের প্রতিবেদন: কোল ইন্ডিয়া লিমিটেডের উৎপাদন বেড়েছে ১৭ শতাংশ। গত বছর জুলাই মাসে উৎপাদন হয়েছিল ৯৪.‌৪ মিলিয়ন কিউবিক মিটার। যা চলতি বছরের জুলাই মাসে বেড়ে ১১০.‌৪০ মিলিয়ন কিউবিক মিটার হয়েছে। একই সময়ে ওভার বার্ডেন রিমুভালও ২৩.‌১ শতাংশ বেড়েছে। গত বছর জুলাই মাসে উৎপাদন হয়ে‌ছিল ৭১.‌৮৫ মিলিয়ন কিউবিক মিটার। ২০২০ সালের জুলাই মাসে তা বেড়ে ৮৮.‌৪৬ মিলিয়ন কিউবিক মিটার হয়েছে।
এক বিবৃতিতে সংস্থার পক্ষে জানানো হয়েছে, নর্দার্ন কোলফিল্ডস লিমিটেড সমগ্র উৎপাদনের এক তৃতীয়াংশ করেছে। চলতি বছরের জুলাই মাসে তাদের উৎপাদন বৃদ্ধির হার ৩৬.‌৭ শতাংশ। এই সময়ে তাদের মাটি কেটে ওভার বার্ডেন রিমুভালের পরিমাণ ৩১.‌৭৩ মিলিয়ন কিউবিক মিটার। মহানদী কোলফিল্ডস লিমিটেড গত বছর জুলাইয়ের তুলনায় এবছর মাটি কেটে উৎপাদনের হার দ্বিগুণেরও বেশি করতে পেরেছে। এই জুলাইয়ে তাদের উৎপাদনের পরিমাণ ১২.‌৪৮ মিলিয়ন কিউবিক মিটার। ভারত কোকিং কোল লিমিটেড এবং সাউথ ইস্টার্ন কোলফিল্ডস লিমিটেডও মাটি কেটে উৎপাদন যথাক্রমে ২৫ এবং ২১ শতাংশ বাড়াতে পেরেছে।
২০২০–র জুলাইয়ে কোল ইন্ডিয়া ৪৩.‌৩৯ মিলিয়ন মেট্রিক টন কয়লা সরবরাহ করতে পেরেছে। যা চলতি আর্থিক বছরে সর্বাধিক। লকডাউন এবং তিন দিনের ধর্মঘটের পরও জুন মাসের তুলনায় জুলাইয়ে কোল ইন্ডিয়ার বিক্রিও ৪.‌৩ শতাংশ বেড়েছে। বিদ্যুৎ উৎপাদনের সঙ্গে সম্পর্কিত নয়, এমন ক্ষেত্রেও সরবরাহ ২১ শতাংশ বেড়েছে। ‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top