আজকাল ওয়েবডেস্ক: ‌পাকিস্তানি টিভি সিরিয়াল দেখার শাস্তি পেতে হল স্ত্রীকে। ৪০ বছরের ব্যক্তি তার স্ত্রীকে চপার দিয়ে আক্রমণ করে। জানা গিয়েছে, অভিযুক্তের স্ত্রী স্বামীকে গুরুত্ব না দিয়ে মোবাইলে পাকিস্তানের সিরিয়াল দেখতে ব্যস্ত ছিলেন। সেই রাগেই স্বামী চপার দিয়ে স্ত্রীর ওপর হামলা চালায়।
পুলিস সূত্রে জানা গিয়েছে, পুনের সলিশবাড়ি পার্ক এলাকার বাসিন্দা আসিফ সত্তার নায়াব পেশায় হোর্ডিং ব্যবসায়ী। সে তার পরিবারের সঙ্গেই থাকত। তাকে পুলিস গ্রেপ্তার করেছে এবং অভিযুক্তের বিরুদ্ধে তার স্ত্রীকে খুনের চেষ্টার মামলা দায়ের হয়েছে। পুলিস জানিয়েছে, সোমবার সকাল থেকেই দম্পতির মধ্যে ঝগড়া শুরু হয়। মহিলা তার ছেলেকে দোকান থেকে দুধ আনতে পাঠায়। কিন্তু তাঁর ছেলে যখন দুধ নিয়ে আসে তখন দেখা যায় দুধের প্যাকেট ফেটে গিয়েছে এবং কিছুটা দুধ মাটিতে পড়ে নষ্ট হয়ে গিয়েছে। ওই মহিলা তখন তাঁর ছেলেকে বকা দিতে শুরু করে। স্ত্রীর গলা শুনে আসিফ এসে গোটা ঘটনাটিতে হস্তক্ষেপ করে এবং স্বামী–স্ত্রীর মধ্যে উত্তপ্ত কথোপকথন শুরু হয়।
মহিলার অভিযোগ অনুযায়ী, সোমবার সন্ধ্যার সময়েও তাঁর স্বামীর সঙ্গে কথা বলেন না তিনি। এরপরই শুরু হয় ঝগড়া। পুলিসের এক শীর্ষ কর্তা বলেন, ‘‌আসিফ যখন কাজ থেকে বাড়ি ফেরে তন তাঁর স্ত্রী মোবাইলে পাকিস্তানি সিরিয়াল পাকিস্তানি ড্রামা‌ দেখছিলেন। আসিফ কথা বলা সত্ত্বেও তিনি কথা বলেন না। আসিফের মনে হয় তার স্ত্রী তাকে এড়িয়ে যাচ্ছে এবং মোবাইলে চলা সিরিয়ালকে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে। এরপরই রাগে আসিফ রান্নাঘর থেকে চপার নিয়ে স্ত্রীর ওপর হামলা চালায়। এই হামলার জেরে মহিলার ডান হাতের বুড়ো আঙুল কেটে যায়। তিনি এখন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। গ্রেপ্তার করা হয়েছে স্বামীকে।’‌        

 


 

জনপ্রিয়

Back To Top