আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ কোত্থেকে কী হল বোঝার উপায় নেই, হঠাৎ করে ফেসবুক জুড়ে ঝড় তুলেছে পরকীয়া গ্রুপ। একের পর এক গ্রুপ তৈরি হচ্ছে ফেসবুকে, যেখানে বিবাহিত আর অবিবহিতদের আহ্ববান করা হচ্ছে সদস্য হতে। সেখানে নাকি পরকীয়া সম্পর্ক স্থাপিত হবে সদস্যদের মধ্যে। আর তাতেই একেক জন এক এক রকম মত প্রকাশ করছেন। 
একটি গ্রুপের সাধারণ পরিচয়ে লেখা আছে, ‘‌একটা মিষ্টি বারান্দা টাইপ গ্রুপ। বিবাহিত মানুষ জন এখানে এসে দু’‌দন্ড বসে জিরোবে, গোপনে মনের মানুষ খুঁজে বিবাহের ফর্মুলা ভেঙে একটু মনের কথা কইবে। আর সিঙ্গেলদের দাদা বা বৌদিদের আদর পাবার অন্যতম যায়গা। মোটের উপর ভার্চুয়াল রাস।’‌ তবে আর পাঁচটা নিষিদ্ধ গ্রুপের মতো এখানে কোনও অবৈধ কথাবর্তা, রুচিহীন আলাপের জায়গা নেই। বরং এখানে আলোচনা হবে অনেক রুচিশীল এবং মজার। কী শর্ত রাখা হয়েছে গ্রুপে.‌.‌.‌.‌.‌
❏‌ গ্রুপে পর্ন দেবেননা,সাহিত্য শৈল্পিক রসিক পোস্ট হোক। সাহিত্য নির্ভর,শৈল্পিক, পরকীয়া নিষিদ্ধ ভালোবাসার পোস্ট হোক, খিল্লি হাসি মজা করা হোক। অযথা পর্ন দেবেন না,তাহলে ব্লক করা হবে।
❏‌ ধর্ম নিয়ে কোন প্রকার অতিসক্রিতা করা চলবে না। ধর্ম টেনে এনে মানুষ কে অবমাননা করলে, তাকে গ্রুপ থেকে ত্যাগ করা হবে। মনে রাখবেন সর্বদা এটা ভালোবাসার যায়গা। পরিষ্কার রাখুন। হাসি ঠাট্টাতে মজে থাকুন।
❏‌ রাজনৈতিক দ্বন্দ ও অন্যান্য যা দ্বন্দমূলক বাইরে থাক। ব্যক্তিগত আক্রোশ ঝামেলা সব বাইরে রেখে ভালোবাসতে, বয়সসীমা পেরিয়ে মজা ইয়ার্কি খিল্লি করতে, ভালো লেখা ঝোকা আমাদের দিতে ও ভাগ করে নিন। ঝামেলা তো নিত্য সঙ্গী।
কদিন হল, এর মধ্যেই এই গ্রুপ নিয়ে শুরু হয়েছে মাতমাতি। গ্রুপের এক মহিলা সদস্য নাম না করে জানালেন, ‘‌আর আমি ছুটকো ছাটকা ফ্লার্ট করি। আসলে আমি পলিগ্যামাস মহিলা। মনোগ্যমাস কন্ট্রাক্ট এ বিশ্বাস করি না। আবার, জীবনে শান্তিরও চাহিদা আছে। তাই প্রেম আর বিয়েটাও ইমপর্ট্যান্ট। তবে এই গ্রুপ নিয়ে সিরিয়াসলি কিছু বলার দরকার বোধ করছি না, কারণ, এ নেহাতই মজা।’‌

জনপ্রিয়

Back To Top