আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ মহাত্মা গান্ধীর সোনার চশমা নিলামে চড়ল সেই ইংল্যান্ডে। যাদের শাসন থেকে মুক্ত হওয়ার জন্যই লড়েছিলেন গান্ধীজী। অনুমান করা হচ্ছে, শেষমেশ বিক্রি হবে ১০ হাজার থেকে ১৫ হাজার পাউন্ডে।
রবিবার দক্ষিণ–পশ্চিম ইংল্যান্ডের হানহামের পূর্ব-ব্রিস্টল নিলাম কর্তৃপক্ষ জানাল, তাদের লেটারবক্সে একটি খামের মধ্যে পাওয়া এই চশমাটির পেছনে যে এত সমৃদ্ধ ইতিহাস থাকতে পারে তা জানতে পেরে তারা খুব খুশি হয়েছে। ঘটনাটির শুরু এখান থেকে। তাদের দপ্তরে একটি খামের মধ্যে করে এই চশমাটি আসে। যিনি নিয়ে এসেছিলেন, তাঁর কাছে কোনও তথ্য ছিল না। কিন্তু তাঁর ধারণা হয়েছিল, এর পেছনে কোনও না কোনও ইতিহাস থাকবে। তিনি না জেনেই সেটি পূর্ব-ব্রিস্টল নিলামের দপ্তরে দিয়ে যান। এরপর অনলাইনে নিলাম চলাকালীন এই চশমাটির জন্য ৬০০০ পাউন্ড দাম হেঁকেছেন এক বৃদ্ধ ব্রিটিশ। তাঁর কথামতো, তাঁকে তাঁর বাবা বলেছিলেন তাঁর কাকা যখন দক্ষিণ আফ্রিকায় ব্রিটিশ পেট্রোলিয়ামে কাজ করতেন, স্ময়ং মোহনচাঁদ করমচাঁদ গান্ধীর কাছ থেকে এরকম একটি চশমা উপহার পেয়েছিলেন। পূর্ব-ব্রিস্টল নিলামের আয়োজক অ্যান্ডি স্টোউই জানালেন, ‘‌তাঁর কথা অনুযায়ী, তাঁর কাকা ১৯১০ থেকে ১৯৩০ সালের মধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকায় চাকরি করতেন। এবং ওই সময়েই এই চশমাটি পেয়েছিলেন। এবং ইতিহাস থেকে যে’‌টুকু জানা যায়, গান্ধীজী ওই সময় থেকেই চশমা পরা শুরু করেছিলেন। তাঁদের পরিবারের কাছেই ছিল বহু বছর ধরে। কোনওভাবে হারিয়ে গিয়েছিল। ৫০ বছর আগে এই ব্রিটিশ বৃদ্ধের বাবা তাঁকে যে ঐতিহাসিক চশমাটির কথা বলেছিলেন, সেটি ফের এই নিলামের মাধ্যমে তাঁদের পরিবারেই ফিরতে পারে। যদি এই চশমাটির দাম এর বেশি আর না চড়ে।’‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top