বিজয়প্রকাশ দাস, পূর্ব বর্ধমান: বিভিন্ন দাবি–দাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে রাজ কলেজের ছাত্র সংসদের পক্ষ থেকে অধ্যক্ষকে ঘেরাও করা নিয়ে অভিযোগ–পাল্টা অভিযোগকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়াল। ছাত্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক সুরজ ঘোষ কলেজ অধ্যক্ষ ডঃ নিরঞ্জন মণ্ডলের বিরুদ্ধে ছাত্রভর্তি নিয়ে দুর্নীতি–সহ নানা গুরুতর অভিযোগ তুলেছেন। পাশাপাশি জিএস সুরজ ঘোষের বিরুদ্ধেও স্মারকলিপি দেওয়ার নামে হুমকি ও অভব্য আচরণের পাল্টা অভিযোগ তুলেছেন অধ্যক্ষ। তিনি বিষয়টি রাজ্য উচ্চশিক্ষা দপ্তরকেও জানাবেন।
ছাত্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক সুরজ ঘোষ অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে বলেন, ‘‌আমরা কলেজের পড়াশোনা ও ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্ন ধরণের অভাব–অভিযোগ নিয়ে অধ্যক্ষের কাছে এলে তাঁকে কখনও আমরা একা পাই না। যখনই আমরা অভিযোগ জানাতে আসি সব সময়ের জন্য তাঁর ঘরে অধ্যাপক রবিশঙ্কর চৌধুরি পড়ে থাকেন। তিনি কাজকর্ম ছেড়ে অধ্যক্ষের ঘরে শুয়ে–বসে দিন কাটান। তা সত্ত্বেও আমরা অধ্যক্ষকে আলাদাভাবে কথা বলার জন্য অনুরোধ জানালে অধ্যক্ষ বলেন, তাঁর সামনে বলা যেতে পারে। অথচ আমরা সবাই জানি রবিশঙ্করবাবুর বিরুদ্ধেও একাধিক অভিযোগ আছে। সে সম্পর্কেও আমরা অধ্যক্ষের কাছে অভিযোগ জানিয়েছিলাম। কিন্তু তাতে কোনও ফল হয়নি।’‌ জিএসের আরও অভিযোগ, বেশ কয়েকজন ছাত্রর ভর্তি নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ আছে অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে। এই সব অভিযোগ নিয়ে অধ্যক্ষ ডঃ নিরঞ্জন মণ্ডল মুখ না খুললেও তিনি জিএসের বিরুদ্ধে মারাত্মক অভিযোগ তুলে বলেন, ‘‌এদিন আমার কাছে পড়ুয়ারা তাদের দাবি–দাওয়া সম্পর্কিত স্মারকলিপি দিতে এসে অভব্য আচরণ করেছে। তারা চেচামিচি করে কলেজের শান্তি বিঘ্নিত করেছে।’‌ ওই হুমকি ও অভব্য আচরণের কথা রাজ্য উচ্চশিক্ষা দপ্তরকে জানাবেন বলে জানিয়েছেন। তবে এই আচরণের কথা অস্বীকার করেছেন জিএস।

বিক্ষোভের মুখে অধ্যক্ষ। ছবি:‌ প্রতিবেদক

জনপ্রিয়

Back To Top