সংবাদ সংস্থা,দিল্লি ও‌ গুরুগ্রাম: প্রদ্যুম্ন ঠাকুর হত্যা মামলায় সোহনা কোর্ট থেকে মামলা দিল্লির সাকেত কোর্টে স্থানান্তিরত করা হোক। সুপ্রিম কোর্টে আবেদন রায়ান গ্রুপের। স্কুল কর্তৃপক্ষের আইনজীবী কে টি এস তুলসী আদালতে বলেন, ‘‌ছাত্র–‌হত্যার ঘটনায় রায়ান ইন্টারন্যাশনালের উত্তর শাখার প্রধান ফ্রান্সিস টমাস গ্রেপ্তার হয়েছেন। মামলা সোহনা কোর্টে রয়েছে। কিন্তু গুরুগ্রাম আর সোহনা বার অ্যাসোসিয়েশনের আপত্তি আছে। তাই ফ্রান্সিসের হয়ে আদালতে সওয়াল করতে রাজি নন সেখানকার আইনজীবীরা। এতে সংবিধানের ২১ নম্বর ধারায় উল্লিখিত জীবন ও ব্যক্তিস্বাধীনতার অধিকার লঙ্ঘিত হচ্ছে। নিরপেক্ষ শুনানির জন্য মামলা সোহনা থেকে স্থানান্তরিত করা আবশ্যিক।’‌ ১৮ সেপ্টেম্বর সুপ্রিম কোর্টে আবেদনের শুনানি। প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্র, বিচারপতি অমিতাভ রায় এবং এ এম খানউইলকরের বেঞ্চে শুনানি হবে। গ্রেপ্তারি এড়াতে আগাম জামিনের আবেদন জানিয়েছেন রায়ান ইন্টারন্যাশনাল গ্রুপের ট্রাস্টিরা। বম্বে হাইকোর্টে তাঁদের এই আবেদন খারিজের পাল্টা আর্জি জানিয়েছেন নিহত ছাত্রের বাবা। এর মধ্যে প্রদ্যুম্ন যৌন নির্যাতনের শিকার হয়নি বলে ময়নাতদন্তের রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে। রহস্য বাড়ছে স্কুলের বাগানের মালি হরপালের বয়ানে। তাঁর দাবি, শৌচালয়ে নয়, প্রদ্যুম্নের রক্তাক্ত দেহ পড়ে ছিল করিডরে। অনেক ছাত্রই দেখেছে। ছাত্রদের চিৎকার–‌চেঁচামেচিতে তিনি সেদিকে ছুটে যান। ছাত্ররাই অঞ্জু নামের এক শিক্ষিকাকে 
প্রথমে খবর দেয়। অশোক তখন শৌচালয়ে ছিল না। স্কুলের জলের ট্যাঙ্কের পাশে প্রবেশপথ আছে। অশোক সেই রাস্তা দিয়ে ঘটনাস্থলে ঢুকেছিল। অশোকের পোশাকে রক্তের দাগ ছিল না। বেশ শান্তই ছিল। স্কুলবাসের চালকের অভিযোগ, অশোকের বিরুদ্ধে স্কুল কর্তৃপক্ষ এবং পুলিস তাঁকে বয়ান দিতে বাধ্য করছে। 
ব্যবসায়ী সুভাষ গর্গের ছেলে ওই স্কুলের ছাত্র। ছেলের ফি দেওয়ার জন্য শুক্রবার তিনি বিদ্যালয়ে গিয়েছিলেন। তিনি বলেন, ‘‌চিৎকার শুনে ঘটনাস্থলে ছুটে যাই। করিডর আর শৌচালয়ে রক্তের দাগ ছিল। পুলিস না আসা পর্যন্ত রক্ত যাতে না ধোয়া হয় সেই পরামর্শ দিয়েছিলাম। কিন্তু সে–‌কথা গ্রাহ্য না করে রক্ত সাফ করে ফেলে স্কুলের সাফাইকর্মীরা। তখন দু’‌জন শিক্ষকের নির্দেশেই বাস কন্ডাক্টর জখম পড়ুয়াকে গাড়িতে তুলে হাসপাতালে নিয়ে যায়।’‌ অশোকের ডিএনএ নমুনা কারনালের ল্যাবরেটরিতে পাঠিয়েছে পুলিস। সিটের তদন্তকারীরা দু’‌জন পড়ুয়ার বয়ান রেকর্ড করেছেন। সিটের অনুমান, ছাত্র–‌হত্যার ঘটনায় তৃতীয় কোনও ব্যক্তির যোগ আছে। যে খুন করার পর শৌচালয়ের ভাঙা জানলা দিয়ে পালিয়ে যায়। বুধবার থেকে স্কুল চালু হওয়ার কথা ছিল। পরিস্থিতি শান্ত না হওয়ায় স্কুল বন্ধ আছে। পরীক্ষাও শুরু হয়নি। 
 

জনপ্রিয়

মুকুলকে নিতে আগ্রহী বিজেপি

বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

অসীম ঘটকের শেষকৃত্য সম্পন্ন

বুধবার ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

থিম ‘‌কন্যাশ্রী’‌ বাঁধল গঙ্গা, টেমসকে  

বুধবার ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

বৃহস্পতিবার ২৪ আগষ্ট, ২০১৭

গণেশ বন্দনায় মেতেছে বলিউড

বুধবার ২৩ আগষ্ট, ২০১৭

ফুলে ঢাকা চিলির মরুভূমি

রবিবার ৬ আগষ্ট, ২০১৭

পুতিনের মেমেতে ছয়লাপ রাশিয়া

শনিবার ৮ জুলাই, ২০১৭

বঙ্গ সংস্কৃতি, আমেরিকা

শনিবার ১ জুলাই, ২০১৭

বঙ্গ সংস্কৃতি অস্ট্রেলিয়া

Back To Top